মেইন ম্যেনু

জাদুঘরে চলে গেল প্রথম সংবিধানের মুদ্রণযন্ত্র

স্বাধীন বাংলাদেশের প্রথম সংবিধান যে যন্ত্রের সাহায্যে ছাপা হয়েছিল, ক্র্যাবট্রি ডাবল ডিমাই নামের সেই যন্ত্রটির ঠাঁই হচ্ছে জাতীয় জাদুঘরে। রোববার বিকেলে জাতীয় জাদুঘর কর্তৃপক্ষের কাছে আনুষ্ঠানিকভাবে মেশিনটি হস্তান্তর করেছে বিজি প্রেস কর্তৃপক্ষ।

এই হস্তান্তর অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও জনপ্রশাসন মন্ত্রী সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম। বক্তব্যে তিনি বলেন, ‘এই মেশিন বিক্রি করলে হয়তো এখন ৫ থেকে ৭ হাজার টাকা পাওয়া যাবে। কিন্তু ইতিহাসে এর মূল্য অনেক।’

তিনি আরো বলেন, ‘আমাদের জাদুঘর ঠিকই আছে কিন্তু একটি স্বাধীন জাতির জন্য তা অপ্রতুল। অতীতকে রক্ষা করতে না পারলে ভবিষ্যত থাকবে না। আমরা সাধারণত কোনো ঐতিহ্য ধরে রাখেতে পারি না। কিন্ত ‍পশ্চিমা বিশ্ব অত্যন্ত নগণ্য কিছুও সংরক্ষণ করে। অনেক সময় হেলার কারণে আমাদের গুরুত্বপূর্ণ অনেক কিছু নষ্ট হয়ে যাচ্ছে। এ বিষয়ে আরো গুরুত্ব দেয়া দরকার।’

আশরাফ আরো বলেন, ‘আজকে যেটার গুরুত্ব নেই ১শ বছর পর তা ইতিহাসে গুরুত্বপূর্ণ হয়ে ওঠে। তাই প্রত্যেকটি জিনিস আমাদের সংরক্ষণ করা প্রয়োজন।’

ব্রিটিশদের প্রসঙ্গে মন্ত্রী বলেন, ‘ব্রিটিশরা বিভিন্ন দেশে থেকে ঐতিহ্যবাহী অনেক জিনিস চুরি করে নিয়ে গেছে। ব্রিটিশ মিউজিয়ামে লাখ লাখ মানুষ আসে, কিন্তু সেখানে অনেক চুরির মাল আছে। মিশরের মমি থেকে ফেরাউনের অনেক গয়না চুরি করে নিয়ে গেছে ব্রিটিশরা। তারা চুরি করে নিয়ে গেছে ঠিকই, কিন্তু সেগুলো বন্ধ ঘরে রাখেনি। সেসব তারা রেখেছে মিউজিয়ামে।’

অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব ড. কামাল আবদুল নাসের চৌধুরী। বক্তব্য রাখেন- সংস্কৃতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর, জাতীয় জাদুঘরের মহা-পরিচালক ফয়েজুল লতিফ প্রমুখ।