মেইন ম্যেনু

জাবিতে খুন-ধর্ষণ বিরোধী মিছিল

শাহাদত হোসাইন স্বাধীন, জাবি প্রতিনিধি: জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে ২রা আগস্ট খুন ও ধর্ষণ প্রতিরোধ দিবসে মিছিল করেছে সাধারণ ছাত্র ঐক্য।

আজ মঙ্গলবার (০২ আগস্ট)সকাল ১১ টায় সমাজবিজ্ঞান অনুষদ থেকে মিছিলটি শুরু হয়ে পুরাতন কলা অনুষদে গিয়ে শেষ হয়।

উল্লেখ্য,১৯৯৯ সালের ২ অগাস্ট ধর্ষণবিরোধী আন্দোলনের এক পর্যায়ে খুনী ও ধর্ষক উভয়কে বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বিতাড়িত করেছিল শিক্ষার্থীরা। ওই আন্দোলনের নেতৃত্ব দিয়েছিলো বামপন্থি সংগঠনগুলো। তারপর থেকে দিনটিকে ‘খুনি ও ধর্ষক প্রতিরোধ দিবস’ হিসেবে পালন করে আসছে বিশ্ববিদ্যালয়ের সাধারণ শিক্ষার্থীরা।

মিছিলের পূর্বে জাহাঙ্গীরনগর থিয়েটার নাটক প্রদর্শন করে। নাটকে খুন,ধর্ষণ ও রামপালের বিরুদ্ধে মানবিকতার বাণী ফুটিয়ে তোলেন নাট্যশ্রমিকরা।

সমাজবিজ্ঞান অনুষদের সামনে প্রদর্শিত নাটকে অনুষদের ডিনের অনুমতি সত্তেও বাধা দেয় একদল ছাত্র-ছাত্রী। এ সময় উপস্হিত সরকার ও রাজনীতি বিভাগের অধ্যাপক ড.নাসিমা আখতার হোসাইন বিব্রত বোধ করেন।

নাটক পরবর্তী মিছিলে সংহতি প্রকাশ করে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের সাংস্কৃতিক সংগঠন,ছাত্র ইউনিয়ন ও সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্ট।

মিছিল শেষে এক সংক্ষিপ্ত সমাবেশে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় সাংস্কৃতিক জোটের সভাপতি জোবায়ের টিপু বলেন,”০২ আগস্ট এ বিশ্ববিদ্যালয়ের সাধারণ ছাত্র ঐক্যবদ্ধভাবে খুন ধর্ষণের বিরুদ্ধে আন্দোলন করে বিশ্ববিদ্যালয় থেকে খুনী ও ধর্ষকদের বিতাড়িত করছিল। আজ সময় এসেছে ০২ আগস্টের হাতিয়ার গর্জে তোলার”।

ছাত্র ইউনিয়নের সভাপতি দীপান্জন সিদ্ধান্ত কাজল বলেন,”জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়েরর সবুজ চত্বরে খুনী ধর্ষকদের কোন স্হান নেই। তিনি ধর্ষণ বিরোধী নাটকে বাধা দেয়ার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানান”।

০২ আগস্টে খুন-ধর্ষণ বিরোধী দিবস উপলক্ষে সন্ধ্যা ০৭ টায় বিশ্ববিদ্যালয়েরর মুক্তমঞ্চে আলোচনা সভার আয়োজন করেছে ছাত্র ইউনিয়ন। আলোচনা সভায় প্রদর্শীত হবে নাটক “আর নয় চুপ থাকা”।