মেইন ম্যেনু

জুয়ার টাকা না দেওয়ায় স্ত্রী হত্যা, স্বামী গ্রেফতার

মাদারীপুরে জুয়া খেলার টাকা না দেওয়ায় বানেছা বেগম (২৬) নামে এক গৃহবধূকে শ্বাসরোধ ও পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ পাওয়া গেছে।

রাজৈরের মজুমদারকান্দি গ্রামে বৃহস্পতিবার রাতে এ ঘটনা ঘটে। ঘটনার পর নিহতের স্বামী জহর আলীকে (৩০) গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, ৪ বছর আগে প্রেম করে রাজৈরের মজুমদারকান্দির আলকাছ শেখের মেয়ে বানেছাকে বিয়ে করেন আলমদস্তারকান্দি গ্রামের সিদ্দিক হাওলাদারের ছেলে জহর আলী। বিয়ের পর থেকেই যৌতুক দাবি করে জহর। পরবর্তীতে বানেছার পরিবার কয়েক কিস্তিতে জহরকে ২ লাখ টাকা যৌতুক দেয়। জহর জুয়া খেলে সব টাকা নষ্ট করলে স্ত্রী বাধা দেয়। এরপর থেকে তার ওপর শুরু হয় অত্যাচার-নির্যাতন। বৃহস্পতিবার রাতে ফের জুয়ার টাকার জন্য স্ত্রীর গলায় রশি পেঁচিয়ে শ্বাসরোধ ও পিটিয়ে হত্যা করে জহর।

নিহতের মেঝ বোন নাজমা বেগম বলেন, ‘যৌতুকের টাকা জুয়া খেলে নষ্ট করেছে জহর আলী। আমার বোন বাধা দিলে প্রায়ই তাকে অত্যাচার করত। বৃহস্পতিবার জুয়া খেলার টাকা না দেওয়ায় তাকে হত্যা করা হয়েছে। এ ঘটনার দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি চাই।’

রাজৈর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আনোয়ার হোসেন ভূঁইয়া জানান, রাতেই খবর পেয়ে পুলিশ জহরকে হাতেনাতে গ্রেফতার করেছে। এ ঘটনায় রাজৈর থানায় হত্যা মামলা করেছে নিহতের পরিবার। লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মাদারীপুর সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে।