মেইন ম্যেনু

জেনে নিন, কার জন্য সার্জারি করে ঠোঁট চিকন করলেন আনুশকা?

প্রথম দিকের অানুশকা শর্মাকে মনে আছে? ‘রব নে বনা দি জোড়ি’-তে যখন প্রথম দেখা দিলেন তিনি, সেই সময়ে? সেই অানুশকা আর এখনকার অনুষ্কার মধ্যে কিন্তু আকাশ-পাতাল তফাত। বিশেষ করে, ঠোঁটে।
সেই সময়ের অানুশকাও ছিপছিপে, চোখধাঁধানো এক নায়িকা। কিন্তু, তাঁর ঠোঁটদুটি ছিল বেশ পুরু। এখন যে ধনুকের মতো ছিলাটান ঠোঁট দেখা যায় নায়িকার, আগে কিন্তু তেমনটা ছিল না।

মানেটা পরিষ্কার, কসমেটিক সার্জারি করে ঠোঁটে মনের মতো আকার নিয়ে এসেছেন অানুশকা। এত দিন পর্যন্ত সেই গোপন রহস্য নিয়ে ঠোঁটদুটি খুলে বিশেষ কিছুই বলেননি নায়িকা। তবে সম্প্রতি, বোমা ফাটালেন। জানালেন, কার জন্য লিপ সার্জারি করাতে বাধ্য হয়েছিলেন তিনি।

কে হতে পারেন তিনি ভাবছেন তো? সন্দেহটা কি সবার আগে যাচ্ছে বিরাট কোহলির দিকেই? উঁহু। জানলে অবাক হবেন, অানুশকার এই ঠোঁট-বদলের নেপথ্যে যিনি রয়েছেন, তার সঙ্গে আজ পর্যন্ত কোনো নারীকে জড়িয়ে কোনো গুজবই শোনা যায়নি। বরং, সন্দেহ করা হয়, বলিউডের প্রথম সারির এক নায়কের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক আছে তার।

করণ জোহর ছাড়া আর কে-ই বা হতে পারেন তিনি! ঠোঁট-বদলের রহস্যভেদ করতে গিয়ে অানুশকা সরাসরি তারই নাম নিয়েছেন। বলেছেন, করণ জোহরের প্রযোজনায় বম্বে ভেলভেট ছবিটা করতে গিয়েই তিনি লিপ সার্জারি করাতে বাধ্য হন। তার চরিত্রের সঙ্গে পুরু ঠোঁটদুটি না কি একেবারেই বেমানান ছিল।

তার পরেই অবশ্য আরো একটা কথা বলেছেন নায়িকা। বলেছেন, ‘আমি একবারের জন্যও অস্বীকার করব না যে আমারো লিপ সার্জারি করানোর ইচ্ছে ছিল। দেখুন, আমিও তো একজন মানুষ। আর কোনো মানুষই পারফেক্ট হয় না। তাই এই লিপ সার্জারি!”