মেইন ম্যেনু

টাকা নিয়ে কমিটির দ্বন্দ্বে মসজিদে তালা, বাইরে নামাজ আদায়

টাকা নিয়ে কমিটির দ্বন্দ্বে মসজিদে তালা দেয়ার ঘটনা ঘটেছে। মুসল্লিরা দুপুরের নামাজ বাইরে আদায় করেছেন

এমন ন্যক্কারজনক ঘটনা ঘটেছে জয়পুরহাট পৌরসভার হাতিল ফকিরপাড়া মহল্লায়। কমিটি নিয়ে দ্বন্দ্বের কারণে বুধবার ভোরে মসজিদে তালা দেয়ার ঘটনায় এলাকাবাসীর মধ্যে চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে।

জানা যায়, হাতিল ফকিরপাড়া জামে মসজিদটি ১৯৮০ সালে প্রতিষ্ঠিত হয়। স্থানীয় মুসল্লিরা নামাজ পড়ে থাকেন এখানে।

বর্তমানে কমিটির সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন মাহবুব আলম গোলাপ ও সাধারণ সম্পাদক হিসেবে আছেন আজিজুল হক।

এই কমিটি কোনো হিসাব-নিকাশ না দেয়ার অভিযোগে কয়েকদিন আগে নতুন একটি কমিটি গঠন করা হয়েছে।

কমিটিতে আকতার ফারুক বকুল সভাপতি ও মামুন ফকির সাধারণ সম্পাদক হিসেবে দায়িত্ব পেয়েছেন। বর্তমানে পুরাতন কমিটি ও নতুন কমিটির মধ্যে টাকা-পয়সার হিসাব নিয়ে দ্বন্দ্ব চরম আকার ধারণ করেছে।

এ নিয়ে গত শুক্রবার মসজিদে নামাজ শেষে গণ্ডগোলের একপর্যায়ে উভয়পক্ষের মধ্যে হাতাহাতিও হয়। এ ঘটনায় পুরাতন কমিটির সাধারণ সম্পাদক আজিজুল হক বাদী হয়ে ১৩ জনের নামে থানায় একটি সাধারণ ডায়রি করেন।

পুলিশ গত রোববার ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। মসজিদে তালা লাগানোর বিষয়ে পুরাতন কমিটির সভাপতি মাহবুব আলম গোলাপ বলেন, মসজিদে তালা দেয়ার বিষয়টি আমি জানি না। তালা কেউ লাগিয়ে থাকলে সভাপতি হিসেবে আমি তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেব।

মসজিদে তালা লাগানার কারণে জাহাঙ্গীর আলম, আব্দুল লতিফ ফকির, শাহীন হোসেন, রাকিব হাসান, আব্দুল মাবুদ , নাঈম , আবজাল হোসেনরা জোহরের নামাজ মসজিদের বাইরে পড়েছেন বলে জানান।

তারা অভিযোগ করেন, পুরাতন কমিটির লোকজন মসজিদে তালা দিয়েছে। মসজিদের মুয়াজ্জিন খলিলুর রহমান ফকির ভুল করে তালা দিয়েছেন বলে জানালেও দীর্ঘক্ষণেও তালা কেন খোলা হলো না এমন প্রশ্নে কোনো উত্তর দিতে পারেননি।

কমিটি নিয়ে চলা দীর্ঘদিনের দ্বন্দ্ব ও মসজিদে তালা লাগানোর বিষয়ে যেকোনো সময় বড় ধরনের রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষ হতে পারে এমন আশঙ্কা এলাকাবাসীর।