মেইন ম্যেনু

টেকনাফে বিজিবির অভিযান প্রায় ২ কোটি টাকার ইয়াবা সহ আটক-১

টেকনাফে পৃথক পৃথক অভিযানে ৬০ হাজার পিস ইয়াবাসহ এক মিয়ানমার নাগরিককে আটক করেছে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)। ৪২ বর্ডার গার্ড ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লেঃ কর্ণেল আবুজার আল জাহিদ জানান, ১৭ অক্টোবর শনিবার সকাল ৭ টায় টেকনাফ বিওপির নাঃ সুবেঃ মোঃ শামছুল আলমের নেতৃত্বে একটি বিশেষ টহল দল টেকনাফের ১নং স্লুইচ গেইট থেকে দক্ষিনে গফুর মেম্বারের প্রজেক্টের সামনে অভিযান পরিচালনা করে।

এসময় নাফ নদীর কিনারায় কেওড়া বাগানে ৬০ লক্ষ টাকা মূল্যমানের ২০হাজার পিস ইয়াবা ট্যাবলেটসহ মিায়ানমার নাগরিক আকিয়াব জেলার মংডু থানার সুদার পাড়া গ্রামের মৃত আব্দুর শুকুরের ছেলে মোঃ রশিদ (২৫)কে আটক করে।

তিনি আরো জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে দক্ষিনে গফুর মেম্বার প্রজেক্টের পার্শ্বে কেওড়া বাগানে বিজিবি টহলদল মাদক পাচারকারীদের ধাওয়া করে রশিদকে আটক করতে সক্ষম হয়। পরে ধৃত ব্যক্তির দেহ তল্লাশী করে তার পিঠে লুঙ্গি দিয়ে বাধা অবস্থায় ২টি পোটলা উদ্ধার করা হয়।

উক্ত পোটলা থেকে ২০ হাজার পিস ইয়াবা ট্যাবলেট পাওয়া যায়। অপরদিকে ভোর রাত দেড় টার দিকে টেকনাফস্থ সাড়ে ৩নং স্লুইশ গেইট সংলগ্ন নাফ নদীতে অভিযান পরিচালনা করে ১ কোটি ২০ লক্ষ টাকা মূল্যমানের ৪০ হাজার পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করতে সক্ষম হয়।

বিজিবি জানায়, মায়ানমার হতে একটি নৌকা বাংলাদেশের জলসীমায় প্রবেশ করলে টহল দল নৌকাটিকে লক্ষ্য করে টর্চ লাইট ফোকাস করলে নৌকায় অবস্থানরত চোরাকারবারীরা বিজিবি’র টহল দলের উপস্থিতি টের পেয়ে নৌকা হতে লাফ দিয়ে নাফ নদীতে পড়ে সাঁতরে শূন্য রেখা অতিক্রম করে মায়ানমার জলসীমানায় চলে যায়। ফলে কাউকে আটক করা সম্ভব হয়নি।

পরবর্তীতে টহল দল নৌকাটি তল্লাশী করে পাটাতনের নীচে স্কচটেপ দিয়ে মোড়ানো ৪টি ইয়াবার প্যাকেট উদ্ধার করতে সক্ষম হয়। পরে প্যাকেটগুলো খুলে গননা করে ১ কোটি ২০ লক্ষ টাকা মূল্যমানের ৪০হাজার পিস ইয়াবা ট্যাবলেট পাওয়া যায়।

উদ্ধারকৃত ইয়াবা ট্যাবলেটগুলো ব্যাটালিয়ন সদরে জমা রাখা হয়েছে যা পরবর্তীতে উর্দ্ধতন কর্মকর্তা, মাদকদ্রব্য অধিদপ্তরের প্রতিনিধি, স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ ও মিডিয়া কর্মীদের উপস্থিতিতে ধ্বংস করা হবে জানান ৪২ বিজিবি অধিনায়ক লেঃ কর্ণেল আলহাজ্জ আবুজার আল জাহিদ।