মেইন ম্যেনু

ট্রাম্পের বিজয়ে বৈশ্বিক ঝুঁকির আশঙ্কা

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের নভেম্বরের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের প্রার্থী বাছাইয়ে রিপাবলিকান দলের প্রার্থী হিসেবে এগিয়ে রয়েছেন ডোনাল্ড ট্রাম্প। তবে ট্রাম্প যদি প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হন তাহলে শুধু আমেরিকা নয় সারা বিশ্ব বেশ কিছু ঝুঁকির মধ্যে পড়বে বলে এক গবেষণা প্রতিবেদনে দেখিয়েছে ইকোনমিস্ট ইনটেলিজেন্স ইউনিট (ইআইইউ)।

ইআইইউর ওই গবেষণায় বলা হয়েছে, ট্রাম্প প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হলে বৈশ্বিক অর্থনীতি বিপর্যস্ত হয়ে পড়বে। এ ছাড়া মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের রাজনীতি ও নিরাপত্তা হুমকির মুখে পড়বে।

ওই প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, যুক্তরাজ্যের ইউরোপীয় ইউনিয়ন ছেড়ে যাওয়া বা দক্ষিণ চীন সাগরে সশস্ত্র সংঘাতের চেয়েও বেশি ঝুঁকিপূর্ণ ট্রাম্পের আমেরিকার প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হওয়া। চীনের মারাত্মক অর্থনৈতিক বিপর্যয়, ইউক্রেনে রাশিয়ার হস্তক্ষেপ ও সিরিয়ার গৃহযুদ্ধের দিকে এগিয়ে যাওয়ার চেয়ে বেশি ভয়ংকর এটি।

ইআইইউর বৈশ্বিক ঝুঁকির মূল্যায়নবিষয়ক ওই প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, এ পর্যন্ত ট্রাম্প তার কৌশলগুলোর খুব অল্পই প্রকাশ করেছেন এবং এগুলোর মধ্যে ক্রমাগত পেছনে ফিরে যাওয়ার প্রবণতা দেখা গেছে।

ওই প্রতিবেদনে বৈশ্বিক ঝুঁকির ২৫টি কারণ উল্লেখ করা হয়েছে। যেখানে ট্রাম্পের অবস্থান ১২ নম্বরে। যা বিশ্বব্যাপী জিহাদি সন্ত্রাসবাদের কারণে অর্থনৈতিক অস্থিতিশীলতার উত্তরোত্তর বৃদ্ধির সমান বলে মনে করা হচ্ছে।

ট্রাম্পের ঔদ্ধত্যপূর্ণ কথার কারণে মেক্সিকো ও চীনের সঙ্গে আমেরিকার বাণিজ্যিক সম্পর্ক খুব দ্রুত নষ্ট হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে। এ ছাড়া নাফটা চুক্তি ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারেও বলে মনে করা হচ্ছে। একইভাবে সাম্প্রদায়িকতা বেড়ে যেতে পারে এবং জঙ্গিবাদ মাথাচাড়া দেওয়ার আশঙ্ক অত্যন্ত প্রকট।

এ ছাড়া মধ্যপ্রাচ্য ও সব মুসলিমদের আমেরিকা ভ্রমণে নিষেধাজ্ঞার ঘোষণায় আমেরিকার ওপর জঙ্গি হামলার আশঙ্কা বেড়ে যাবে বলে মনে করছে ইআইইউ।