মেইন ম্যেনু

ডিপ্রেশনের উপসর্গ কমায় এসেনশিয়াল অয়েল

ডিপ্রেশন হচ্ছে সবচেয়ে সাধারণ মানসিক অসুস্থতা। ওয়ার্ল্ড হেলথ অর্গানাইজেশন (WHO) এর মতে সারা পৃথিবীতে প্রায় ৩৫০ মিলিয়ন মানুষ ডিপ্রেশনে ভুগছে। সাধারণত ঔষধ, থেরাপি ও কাউন্সেলিং এর মাধ্যমে ডিপ্রেশনের চিকিৎসা করা হয়। গবেষণায় জানা যায় যে, হালকা ডিপ্রেশনের উপসর্গগুলোকে কমাতে সাহায্য করে অ্যারোমাথেরাপি। ঘ্রাণের শক্তিশালী প্রভাব আছে আমাদের আবেগ ও মেজাজের উপর। এসেনশিয়াল অয়েল এক ধরণের উদ্বায়ী তেল যাতে সুগন্ধি অণু থাকে এবং এটি রক্ত বা মস্তিষ্কের বাঁধাকে অতিক্রম করতে পারে। তাছাড়া মস্তিষ্কের যে অংশটি স্ট্রেস, অ্যাংজাইটি, ভয় ও বিষণ্ণতা নিয়ন্ত্রণ করে তার উপর সরাসরি প্রভাব ফেলতে পারে এসেনশিয়াল অয়েল। চলুন তাহলে জেনে নিই এমন কিছু এসেনশিয়াল অয়েল এর কথা যা ডিপ্রেশন কমাতে সাহায্য করে।

১। ল্যাভেন্ডার অয়েল

কমপ্লিমেন্টারি এন্ড অল্টারনেটিভ মেডিসিন নামক জার্নালে প্রকাশিত গবেষণা প্রতিবেদনে জানা যায় যে, ল্যাভেন্ডার অয়েল ডিপ্রেশনের উপসর্গ কমতে সাহায্য করে। একটি ডিফিউজারের মধ্যে ল্যাভেন্ডার অয়েল নিয়ে আপনার বিছানার পাশে রাখতে পারেন। অথবা ঘুমাতে যাওয়ার পূর্বে একটি টিস্যু পেপারে ২-৩ ফোঁটা ল্যাভেন্ডার অয়েল লাগিয়ে তা আপনার বালিশের কভারের ভেতরে রাখুন।

২। থাইম ওয়েল

ব্রাজিলের গবেষকেরা জেনেছেন যে, থাইম অয়েল অ্যান্টিডিপ্রেসেন্ট হিসেবে কাজ করে। কারণ এতে কারভাক্রল নামক উপাদান থাকে যা মেজাজের উন্নতি ঘটাতে সাহায্য করে।

৩। জেসমিন ওয়েল

থাই গবেষকদের মতে জেসমিন অয়েল পেটের উপর লাগানো হলে মেজাজের উন্নতি হয়। গবেষণাটিতে ৪০ জন মানুষ অংশগ্রহণ করে। তারা হালকা বিষণ্ণতা থেকে উপশম লাভ করে এবং স্বস্তি পায়।

৪। ক্যামোমিল ওয়েল

বিভিন্ন গবেষণায় প্রমাণিত হয়েছে যে, ক্যামোমিল অয়েল বিষণ্ণতার লক্ষণগুলোকে কমতে সাহায্য করে কোন প্রকার পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া ছাড়াই। যদি আপনার ডিফিউজার না থাকে তাহলে এক বালতি উষ্ণ গরম পানিতে কয়েক ফোঁটা ক্যামোমিল অয়েল মিশিয়ে নিয়ে এই পানি দিয়ে গোসল করুন।

৫। রোজ এসেনশিয়াল অয়েল

ডিপ্রেশন কমাতে চমৎকারভাবে কাজ করে রোজ এসেনশিয়াল অয়েল। ইরানীয়ান রেড ক্রিসেন্ট মেডিক্যাল জার্নালে প্রকাশিত এক গবেষণা প্রতিবেদনে জানা যায় যে, রোজ এসেনশিয়াল অয়েল এর অ্যারোমাথেরাপি ও ফুটবাথ নিলে গর্ভবতী নারীর অ্যাংজাইটি ও ডিপ্রেশন কমে।

আপনার প্রিয় কোন এসেনশিয়াল অয়েল ১/২ ফোঁটা হাতের তালুতে নিয়ে ঘষুন এবং দুই হাতের তালু দিয়ে নাক ঢেকে গভীরভাবে শ্বাস নিন এবং ধীরে ধীরে নিঃশ্বাস ফেলুন। এতে করে আপনার ডিপ্রেশনের অনুভূতি কমবে।