মেইন ম্যেনু

ড্রোন হামলায় আইএসের আফগান-পাকিস্তান প্রধান নিহত

জঙ্গি গোষ্ঠী ইসলামিক স্টেটের (আইএস) আফগানিস্তান ও পাকিস্তান শাখার প্রধান হাফিজ সাঈদ খান যুক্তরাষ্ট্রের ড্রোন হামলায় নিহত হয়েছেন। গত মাসে হামলা চালিয়ে তাকে হত্যা করা হয়েছে বলে দাবি করেছে পেন্টাগন। খবর বিবিসির।

হাফিজ সাঈদ তালেবানের সাবেক কমান্ডার ছিলেন। তিনি আফগানিস্তানে বহু জঙ্গি হামলার নেতৃত্ব দিয়েছেন।

আফগানিস্তানের গোয়েন্দা সংস্থা গত বছর দাবি করেছিল যে, দেশটির পূর্বাঞ্চলীয় প্রদেশ নানগারহারে একটি ড্রোন হামলায় সাঈদ খান নিহত হয়েছেন। তবে তখন আইএস দাবি করেছিল তাদের নেতা কোনওভাবে প্রাণে বেঁচে গেছেন। তার মৃত্যুর বিষয়টি সেসময় নিশ্চিত করা যায়নি।

শুক্রবার পেন্টাগন এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, গত মাসের শেষের দিকে নানগারহার প্রদেশের জেলা আচিনে ড্রোন হামলায় সাঈদ খান নিহত হয়েছেন।

রাজধানী কাবুলে শিয়া হাজারা সম্প্রদায়ের এক সমাবেশে আইএসের আত্মঘাতী হামলায় অন্তত ৮০ জন নিহত এবং ২৩০ জন আহত হওয়ার তিনদিন পর ওই ড্রোন হামলা চালানো হয়।

সেসময় আফগান গোয়েন্দা সংস্থা জানিয়েছিল, নানগারহার প্রদেশে এক সামরিক অভিযানে ১২০ জন আইএস জঙ্গি নিহত হয়েছে। কিন্তু তখন তারা কোট জেলার কথা উল্লেখ করেছিল আচিন জেলার কথা নয়। নিহতদের মধ্যে সাঈদ খানের নামও তারা উল্লেখ করেনি।

এর আগে ২০১৫ সালের জুলাই মাসেই সাঈদ খানের নিহত হবার খবর প্রকাশ হয়েছিল। এদিকে, পাকিস্তানে আফগান রাষ্ট্রদূত জানিয়েছেন নানগারহার প্রদেশে ড্রোন হামলায় আরও আইএস জঙ্গি নিহত হয়েছে।

গত মে মাসে পাকিস্তানের অভ্যন্তরেও যুক্তরাষ্ট্র ড্রোন হামলা চালায় এবং ওই হামলায় আফগান তালেবান প্রধান মোল্লাহ আখতার মোহাম্মদ মনসুর নিহত হন।