মেইন ম্যেনু

তারেক আন্তর্জাতিকভাবে স্বীকৃত দোষী : হাছান মাহমুদ

বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমান আন্তর্জাতিক ও জাতীয়ভাবে স্বীকৃত দোষী বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ।

শুক্রবার বিকেলে আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার ধানমন্ডি রাজনৈতিক কার্যালয়ে দলটির প্রচার ও প্রকাশনা উপ-কমিটির বৈঠকে শেষে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ দাবি করেন।

গতকাল বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব তারেক রহমানের বিরুদ্ধে উচ্চ আদালতের দেয়া রায়ে বিএনপি নেতাদের প্রতিক্রিয়ার প্রেক্ষিতে হাছান মাহমুদ বলেন, এর আগে তারেক রহমানকে একই মামলায় নিম্ম আদালত থেকে খালাস দেয়া হয়েছিল তখন সেটাকে বিএনপি নেতারা স্বাগত জানিয়েছিল। আর এখন উচ্চ আদালতের রায়ের পর বিএনপি বলছে সরকারের ইচ্ছার রায় হয়েছে। সরকারের ইচ্ছায় যদি আদালতের রায় হত তাহলে তারেক সে সময় নিম্ম আদালত থেকে খালাস পেত না।

বিএনপি নেতাদের প্রতি প্রশ্ন রেখে তিনি বলেন, সরকারের ইচ্ছায় কী সিঙ্গাপুরের আদালতে আরাফাত রহমান কোকোর শাস্তি হয়েছিলো? সরকারের ইচ্ছায় কী এফবিআই বাংলাদেশে এসে তারেক রহমানের বিরুদ্ধে স্বাক্ষী দিয়েছিলো? বাংলাদেশের আইন ও আদালত সম্পূর্ণরূপে স্বাধীন এবং অতীতের যেকোন সময়ের তুলনায় বেশি স্বাধীনতা ভোগ করেছে। তাই বিএনপি নেতাদের বাস্তবতা মেনে নিতে অনুরোধ করেন তিনি। কারণ তারেক রহমান যে দোষী এটা এখন দেশে-বিদেশে আন্তর্জাতিকভাবেই স্বীকৃত।

গুলশান ডিপ্লোম্যাটিক জোন থেকে অনুমোদিত কার্যালয়, ব্যবসা প্রতিষ্ঠান সরানোর নির্দেশনা প্রসঙ্গে আওয়ামী লীগের এই নেতা বলেন, গুলশান ডিপ্লোমেটিক জোন থেকে সমস্ত অননুমোদিত অফিস ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠান সরানোর নির্দেশনা দেয়া হয়েছে। সে কারণেই বিএনপি অফিস সরানোর প্রশ্ন এসেছে। বিএনপি কি এতোই ঠুনকো দল যে গুলশান থেকে বিএনপি নেত্রীর রাজনৈতিক কার্যালয় সরালেই তাদের দল ধ্বংস হয়ে যাবে? এ সব বাদানুবাদ বাদ দিয়ে বাংলাদেশে যে কূটনৈতিকরা কাজ করছে তাদের নিরাপত্তা বিধানের জন্য সরকার এবং আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীকে সহায়তা করুন।

সংবাদ সম্মেলনে আরো উপস্থিত ছিলেন দলটির উপ-প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক অসীম কুমার উকিল, কেন্দ্রীয় সদস্য আমিনুল ইসলাম আমিন, সংসদ সদস্য সায়মুম সরোয়ার কমল প্রমুখ।