মেইন ম্যেনু

তুমি নাই

তুমি নাই,
কোথাও পেলাম না খুঁজে, অশ্রু সিক্ত চোখে খুঁজি এ পাশ থেকে ওপাশ, তবুও পেলাম না খুঁজে।

তুমি নাই।
বুকের পাজর ভেঙ্গে যায়, খুঁজে পাই না বলে তোমায়। কোথায় গেলে? আমায় একা রেখে।
থাকি পথের পানে বসে তোমারি অপেক্ষাতে।

তুমি নাই।
আর কতকাল থাকব আমি তোমারি আশাতে? বুঝি না আমি, বুঝি না কিছু, চাই শুধু তোমাকে।
ফিরে এসো তুমি, এই বুকে,
আছি তোমারি অপেক্ষায় আমি।

তুমি নাই।
কত সোচনা, কত হাহাকার ভরা হৃদয় নিয়ে চলেছি আমি তোমার খোঁজে, পেলাম না একটু দিশা। তুমি যেওনা হারিয়ে। কি ছিল অপরাধ?
কি করেছি আমি?
বলে যাও একবার তুমি।

তুমি নাই।
কেঁদে কেঁদে চোখের জল ফুরিয়ে গেছে, আর কাঁদতে পারি না আজ, চোখের কোনে তপ্ত উষ্ণ জল শুঁকিয়ে গেছে, রয়ে গেছে কিছু শুঁকিয়ে যাওয়া লবণ। পারি না আর সইতে জ্বালা,
ফিরে এস, খেল না আর নিষ্ঠুর খেলা।
তুমি নাই। তুমি নাই।

তুমি নাই।
আর সইতে পারি না, বেদনার আকাশে আজ জমেছে মেঘ। ফিরে এস তুমি। আর বলতে চাই না, তুমি না…..।