মেইন ম্যেনু

তৃষ্ণা মেটাতে শরবত

প্রচণ্ড গরম আর সূর্যের তাপে অতিষ্ঠ হয়ে ঠাণ্ডা কোমল পানীয়র দিকে হাত না বাড়িয়ে বরং পান করুন এক গ্লাস শরবত। ফলের শরবত শরীরে পানির অভাব দূর করবে এবং তাৎক্ষণিক প্রশান্তি জোগাবে। অপরদিকে বোতলজাত কোমল পানীয়তে সাময়িক তৃপ্তি আসলেও আদতে এটি শরীরে পানির চাহিদা আরও বাড়িয়ে দেবে। এই মৌসুমে বিশেষজ্ঞদের তাই পরামর্শ বেশি বেশি করে শরবত পান করুন।

তবে মনে রাখতে হবে বাইরে, খোলা পরিবেশে এবং অস্বাস্থ্যকর পানি দিয়ে তৈরি শরবত পান করা যাবে না। এতে হিতে-বিপরীত হতে পারে। বাড়িতেই তৈরি করুন মজাদার শরবত। এই মৌসুমে বাজাবে বেল, কামরাঙ্গা, তরমুজ ইত্যাদি ফল সহজলভ্য। সুতরাং এগুলো দিয়ে তৈরি শরবত প্রতিদিন এক গ্লাস পান করলেই মিলবে প্রয়োজনীয় পুষ্টি উপাদানও।

বেলের শরবত

বেল ১টা, দুধ আধা কাপ, পানি ৪ কাপ, চিনি পরিমাণ মতো।

বেল আগের দিন অথবা ১২ ঘন্টা ভিজিয়ে রাখুন। এবার বেলের আঠা ও বিচি ফেলে ভালভাবে চটকে চালনিতে ছেঁকে নিন। তারপর বেলের রসের সঙ্গে পরিমাণ মতো পানি দিয়ে চিনি ও দুধ মেশান। প্রয়োজন মতো বরফ কুচি দিয়ে পরিবেশন করুন।

তেঁতুলের শরবত

তেঁতুল, বিট-লবন, চিনি, কাঁচামরিচ কুচি, ধনিয়া পাতা কুচি, শুকনা মরিচের গুড়া ও ঠান্ডা পানি।

প্রথমে তেঁতুল থেকে বিচি আলাদা করে একটি পাত্রে গুলে নিন। গোলানো তেঁতুলের সঙ্গে পরিমানমতো ঠান্ডা পানি মিশান। এবার তেঁতুলের সঙ্গে একে একে পরিমানমতো চিনি, বিট-লবন, টেলে রাখা শুকনা মরিচের গুড়া, কাঁচা মরিচ কুচি ও ধনিয়া পাতা কুচি দিন এবং নেড়ে ১০ মিনিট রাখুন। তেঁতুলের মিশ্রনটি অন্য একটি পাত্রে ছাকনি দিয়ে ছেকে গ্লাসে ঢেলে বরফ কুচি দিয়ে পরিবেশন করুন।

তরমুজের শরবত

৩০০ গ্রাম তরমুজ, বিট লবণ, চিনি, বরফ কুচি।

তরমুজ টুকরো করে কেটে ব্লেন্ডারে দিন। সঙ্গে পানি, পরিমাণ মতো বিট লবণ, চিনি মিশিয়ে ব্লেন্ড করুন। ২০ মিনিট ফ্রিজে রেখে বরফ কুচি দিয়ে পরিবেশন করুন।

দই- স্ট্রবেরির শরবত

দই ২৫০ মিলিলিটার, স্ট্রবেরি ২ থেকে ৪টা, চিনি ১০ মিলিগ্রাম।

ব্লেন্ডারে দই, স্ট্রবেরি এবং চিনি দিয়ে ব্লেন্ড করুন। ফ্রিজে কিছুক্ষণ রেখে বরফ কুচি দিয়ে পরিবেশন করুন।

দইয়ের শরবত

পানি ৬ গ্লাস, মিষ্টি দই-৪ কাপ, গোলমরিচ গুঁড়া সামান্য, বিট লবণ ও লবণ স্বাদমতো, বরফ ও চিনি পছন্দমতো।

দইয়ের সঙ্গে সব উপকরণ মিশিয়ে ব্লেন্ড করুন। এবার স্বচ্ছ গ্লাসে বরফ কুচি দিয়ে পরিবেশন করুন দই শরবত।

কামরাঙ্গার শরবত

কামরাঙ্গা (কাঁচা কিংবা পাকা), চিনি, বিট লবন, কাঁচা মরিচ, বরফ কুচি

কামরাঙ্গার শিরা এবং বিচি ফেলে অন্যান্য সব উপকরণের সঙ্গে ব্লেন্ড করে নিন। এবার ছেঁকে নিয়ে বরফ কুচি দিয়ে পরিবেশন করুন কামরাঙ্গার টক-মিষ্টি শরবত।