মেইন ম্যেনু

‘তেলের দাম কমানো ব্যবহারকারীদের জন্য আশীর্বাদ’

আন্তর্জাতিক বাজারে তেলের দাম এক তৃতীয়াংশে নেমে আসার দীর্ঘদিন পর জ্বালানি তেলের দাম কমিয়েছে সরকার। সরকারি আদেশ মেনে রাজধানীসহ সারাদেশে নতুন দামে জ্বালানি তেল বিক্রি করছে ব্যবসায়ীরা। তেলের পাম্পগুলোতে বিক্রেতাদের মুখের হাসিতে কিছুটা ভাটা পড়লেও ক্রেতারা দারুন খুশি। রাজধানী মিরপুরের পেট্রোল পাম্পগুলোতে ঘুরে এমন চিত্র লক্ষ্য করা গেছে।

মিরপুর ১৪ নম্বর সেকশনের দিগন্ত পেট্রোল পাম্পের টয়োটা এলিয়েন গাড়িতে অকটেন নিচ্ছেন চালক আলাউদ্দিন। তিনি বলেন, ‘তেলের দাম কমানো ব্যবহারকারীদের জন্যে আশির্বাদ। এই কাজটি করার কারণে সরকারের জনপ্রিয়তা আরো বাড়বে।’

মিরপুর ১০ নম্বর সেকশনের ফকির ফিলিং স্টেশনের বিক্রিয়কর্মী আমজাদ জানান, ‘আজকে অকটেন, পেট্রোল ও ডিজেলের দাম কমানো হয়েছে। সরকারের নির্দেশনা অনুযায়ী রাত ১২টা থেকে নতুন দামে তেল বিক্রি করছি।’

এ চিত্র শুধু মিরপুরের নয়, রাজধানীসহ সারাদেশেই আজ তেল ক্রেতাদের মুখে হাসি বিরাজ করছে। দীর্ঘদিন পরে হলেও দেশের বাজারে জ্বালানি তেলের দাম কমায় খুশি তারা।

উল্লেখ্য, রোববার জ্বালানি তেলের দাম কমানো সংক্রান্ত আদেশ জারি করেছে বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ বিভাগ। ১০ টাকা কমিয়ে নতুন দর অনুযায়ী অকটেন ও পেট্রোল বিক্রি হবে প্রতি লিটার যথাক্রমে ৮৯ টাকা ও ৮৬ টাকায়। আর ডিজেল-কেরোসিনের দাম তিন টাকা করে কমিয়ে ৬৫ টাকা নির্ধারণ করেছে সরকার।

প্রজ্ঞাপন অনুযায়ী রোববার দিবাগত রাত ১২টার পর এ নতুন দর কার্যকর হয়েছে।