মেইন ম্যেনু

দেড় কিলোমিটার রিকশা চড়লেই ভাড়া পঁচিশ হাজার!

রিকশায় যাবেন, আপনাকে ২৫ হাজার হাজার টাকা আলাদা করে রাখতে হবে। তাও আবার দেড় কিলোমিটার রাস্তা যাওয়ার জন্য।

শুনে অবাক হচ্ছেন? হ্যাঁ, এমনই ঘটনা ঘটেছে লন্ডনে। দেড় কিলোমিটার বিকশা ভাড়া গুনতে হয়েছে ৩১৮ ডলার, যা বাংলাদেশি টাকায় দাঁড়ায় ২৫ হাজার।

লন্ডন শহর বেড়াতে যাওয়া পর্যটকদের কাছ থেকে অক্সফোর্ড সার্কাস থেকে মার্বেল আর্ক যাওয়ার জন্য অবিশ্বাস্য ভাড়া দাবি করছেন এক রিকশাচালক। ঘটনাটি ভিডিওতে ধরে রেখেছিলেন এক ট্যাক্সিচালক।

তবে হতবুদ্ধি সেই পর্যটক রিকশাচালকের হাতে ভাড়ার টাকা তুলে দেয়ার আগেই কয়েকজন ট্যাক্সিচালক সেই রিকশা চালককে পাকড়াও করেন। তারা জানতে চান, এই অবৈধ ভাড়া কোন সাহসে দাবি করেন তিনি?

সেই রিকশাচালক জানান, তার কাছে বৈধ প্রাইস লিস্ট আছে। ট্যাক্সি চালকরা বলেন, অক্সফোর্ড সার্কাস থেকে মার্বেল আর্ক যেতে তারা ভাড়া নেন মাত্র ৭ পাউন্ড।

তর্কাতর্কির ভিডিওটি দেখে ওয়েস্টমিনিস্টার সিটি কাউন্সিল তাদের সরকারি ওয়েবসাইটে একটি বিবৃতিতে দিয়েছে। কাউন্সেলর রিচার্ড বেডো জানিয়েছেন, ভিডিওটিতে রিকশাচালকটির সাহস দেখে তারা বাকরুদ্ধ।

এ কারণেই তারা দীর্ঘদিন ধরে চেষ্টা করে আসছেন লন্ডন শহরের রাস্তায় রিকশার উপরে আরো বেশি নজরদারি আরোপ করা। এতে একদিকে যেমন পর্যটকরা ঠকদের হাত থেকে বাঁচবে, অন্যদিকে রাস্তার ভিড়ও নিয়ন্ত্রণে আনা সম্ভব হবে।

লন্ডনে রিকশা নিয়ে এ সমস্যা আজকের নয়, যত দিন যাচ্ছে তত বাড়ছে। বিষয়টি নিয়ে মেয়র বরিস জনসন এতোটাই বিরক্ত যে, লন্ডনের রাস্তায় তিনি রিকশা বন্ধ করে দেয়ার কথা ভাবছেন।