মেইন ম্যেনু

দেশে চরম এক দুরাবস্থা চলছে : পীর সাহেব চরমোনাই

ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর আমীর মুফতী সৈয়দ মোহাম্মদ রেজাউল করীম পীর সাহেব চরমোনাই বলেছেন, দেশে চরম এক দুরাবস্থা চলছে। মানুষের জানমালের নিরাপত্তা নেই। গুম ও খুনের আতঙ্কে মানুষ। অপরদিকে রাজনৈতিক সংকট ক্রমেই জনজীবনকে বিপর্যস্ত করে তুলছে। ক্ষমতার রাজনীতির প্রতিহিংসার আগুনে প্রতিদিন দগ্ধ হচ্ছে সৃষ্টির সেরা আদম সন্তান। জননিরাপত্তা ভেঙ্গে পড়েছে। উন্নয়ন-উৎপাদন, অর্থনীতি থমকে দাড়িয়েছে। হুমকিতে পড়েছে জাতীয় শিক্ষা ও চিকিৎসা ব্যবস্থা। এমনকি রাজনৈতিক সংকট জনজীবনকে এতোটাই জিম্মি ও অসহায় করে তুলেছে যে, দেশের সাধারণ খেটে খাওয়া মানুষ অর্ধাহারে ও অনাহারে জীবন যাপন করছে। অপরদিকে সর্বত্র টেন্ডারবাজ, দখলবাজ, চাঁদাবাজদের সন্ত্রাসী কর্মকান্ডে জনজীবন দুর্বিষহ হয়ে উঠেছে। মানুষ হাপিয়ে উঠেছে। ক্রমাগতভাবে সমস্যা সৃষ্টি হতে হতে সমস্যার পাহাড় তৈরী হয়েছে। অধিকাংশ সাংবাদিক, শিক্ষক, বুদ্ধিজীবি, আইনজীবিসহ প্রায় সকল পেশাজীবিশ্রেণী স্বার্থের কারণে দুর্নীতিগ্রস্থ রাজনৈতিক দলগুলোর লেজুরবৃত্তি করে দ্বিধাবিভক্ত হয়ে পড়েছে। প্রশাসনের কর্মকর্তা-কর্মচারীরা প্রজাতন্ত্রের কর্মচারীর পরিচয় ভুলে গিয়ে দলীয় ভূমিকা পালন করছে। ক্ষমতাসীনরা ক্ষমতাকে পাকাপোক্ত ও স্থায়ী করণের লক্ষ্যে প্রশাসনযন্ত্রকে ক্ষমতার হাতিয়ার হিসেবে ব্যবহার করছে। এমতাবস্থায় ইসলাম ছাড়া এবং আল্লাহ ভীরু নেতৃত্ব ছাড়া সমাজে শান্তি আসবে না।

আজ বিভিন্ন পেশার মানুষের সাথে একান্ত আলাপচারিতায় পীর সাহেব চরমোনাই আরও বলেন, রাজনীতিতে গুনগত ও আদর্শিক পরিবর্তনের লক্ষ্যে তৃণমুল পর্যায় পর্যন্ত সৎ, যোগ্য, দক্ষ ও আল্লাহ ভীরু নেতৃত্ব তৈরির লক্ষ্যে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ দেশব্যাপী ইসলামের দাওয়াত তুলে ধরতে সারাদেশে একযোগে দাওয়াতী মাস কর্মসুচী পালন করা হচ্ছে। তিনি বলেন, ইসলামী আন্দোলন প্রচলিত রাজনীতির পরিবর্তে আদর্শিক পরিবর্তনে বিশ্বাসী বলেই রাজনীতিতে পৃথক একটি ঐক্যবদ্ধ প্ল্যাটফরম তৈরি জন্য কাজ করে যাচ্ছে। এ পরিবর্তনের ধারাবাহিকতায় সকলকে অংশ নেয়া উচিত বলেও আমরা মনে করি। কেননা তাগুতী শক্তির বিরুদ্ধে আদর্শিক পরিবর্তনের বিকল্প নেই।