মেইন ম্যেনু

দেশে বিএনপির কোনো অস্তিত্ব নেই

জাতীয় পার্টির (জাপা) চেয়ারম্যান ও সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদ বলেছেন, অর্থ পাচার মামলায় বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানকে ৭ বছরের কারাদণ্ড দিয়েছেন হাইকোর্ট। এ রায়ের পর রাস্তায় দশ জন মানুষও নামেনি। এ ঘটনা এটাই প্রমান করে, দেশে বিএনপির কোনো অস্তিত্ব নেই। তাই আগামী নির্বাচনে লড়াই হবে আওয়ামীলীগ ও জাতীয় পার্টির মধ্যে। এবং সে নির্বাচনে জাতীয় পার্টিই ক্ষমতায় আসবে।

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় নিউইয়র্কের একটি রেস্তোরাঁর মিলনায়তনে যুক্তরাষ্ট্র জাতীয় পার্টি আয়োজিত এক সংবর্ধনা সভায় এরশাদ এসব কথা বলেন।

জাতীয় পার্টি যুক্তরাষ্ট্র শাখার সভাপতি হাজী আব্দুর রহমানের সভাপতিত্ব এবং সাধারণ সম্পাদক আবু তালেব চৌধুরী চান্দুর পরিচালনায় অনুষ্ঠিত সংবর্ধনা সভায় সাবেক এ রাষ্ট্রপতি বলেন, ‘বাংলাদেশে আইএস বা জঙ্গি নেই। স্থানীয় কিছু বিপথগামী ছেলে সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড চালাচ্ছে। শেখ হাসিনা এসব নিয়ন্ত্রণ করতে সক্ষম হবেন।’

তিনি বলেন, ‘বাংলাদেশের বর্তমান পরিস্থতিতে আমি সংসদে জাতীয় ঐক্যের প্রস্তাব দিয়েছি। আশা করি শেখ হাসিনা আমার কথা রাখবেন।’

এরশাদ বলেন, ‘আমার সময় বাংলাদেশের হিন্দুরা নিরাপদে ছিলেন, আমি ছিলাম অসাম্প্রদায়িক। জাতীয় পার্টি ক্ষমতায় আসলে তারা আরো নিরাপদ থাকবে।’

বর্তমান সংকটে প্রবাসীদের শেখ হাসিনার পাশে থাকার কথা বলেন হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ। তিনি মুক্তিযোদ্ধাদের জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তান উল্লেখ করে তাদের জন্য নানা উদ্যোগ নেয়ার শেখ হাসিনার প্রশংসা করেন।

সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম মেম্বার এবিএম রুহুল আমিন হাওলাদার এমপি, নাসরিন জাহান রত্না এমপি, জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়াম সদস্য সুনীল শুভ রায়, দলের কোষাধ্যক্ষ মেজর (অব.) খালেদ আকতার, যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগ সভাপতি ড. সিদ্দিকুর রহমান।

এছাড়াও স্থানীয় জাতীয় পার্টির নেতাদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন সাবেক এমপি লিয়াকত আলী, প্রধান সমন্নয়কারী আব্দুর নূর বড় ভুঁইয়া, উপদেষ্টা মাহবুবুর রহমান, সহ-সভাপতি হারিছ চৌধুরী, সহ-সভাপতি মাহবুবুর রহমান অনিক, যুগ্ম সাংগঠনিক সম্পাদক মো. লুৎফুর রহমান, জাপা নেতা আলতাফ হোসেন, আশেক বারী টুটুল, যুব সংহতির সভাপতি শাজাহান সাজু ও সিটি কমিটির সভাপতি শুভঙ্কর গাঙ্গুলি প্রমুখ।