মেইন ম্যেনু

ধর্ষণের ৮ বছর পরে জেলে বসে অপরাধীর সঙ্গেই বিয়ে হল ধর্ষিতার

ধর্ষণের অপরাধে এক যুবকের সাজা হয়েছিল। ধর্ষিতা ৮ বছর আগে দাবি করেছিলেন তাকে বিয়ে করতে।

সেই দাবি মেনে এবার পুরুলিয়ায় জেলে বসেই বিয়ে হল তাদের। যে মেয়েটিকে ধর্ষণ করেছিল মনোজ বাউরি (৩০), শেষপর্যন্ত তাকেই বিয়ের মালা পরাতে হল তাকে।
জানা গিয়েছে, ধর্ষণ মামলায় ২০১০ সালে প্রথমবার গ্রেফতার করা হয় মনোজ বাউরিকে।

তার দু’মাস পরে পুত্র সন্তানের জন্ম দেন নিগৃহীতা। সেইসময়ে মনোজের বিরুদ্ধে প্রতারণা ও ধর্ষণের অভিযোগ করার পাশাপাশি তাকে বিয়ের করারও অনুরোধ জানান নিগৃহীতা।

এই ঘটনার পরে আদালতে শুনানি শেষে শেষপর্যন্ত দোষী সাব্যস্ত হয় মনোজ বাউরি। গত ২৯ ডিসেম্বর তাকে দোষী সাব্যস্ত করেন বিচারক। আর এরপরই গতকাল বুধবার মনোজ যুবতীকে বিয়ে করে।

নিগৃহীতা যুবতী জানিয়েছেন, বিয়ে না হলে ছেলেকে কোনও স্কুলে ভর্তি করতে পারছিলেন না তিনি। কারণ ছেলের বাবা কে এমন কোনও পরিচয়পত্র তাঁর কাছে এতদিন ছিল না। তবে এবার সেই সমস্যা মিটল বলেই মনে করছেন তিনি। – অনইন্ডিয়া