মেইন ম্যেনু

নাক ছাড়া জন্মেছে যে শিশু! (ছবিসহ)

শিশুটি চার মার্চ আলাবামাতে জন্ম নিয়েছে। যখন ডাক্তার শিশুটিকে তার মায়ের কাছে হস্তান্তর করে, তখনি সে বুঝতে পারে তার শিশুর নাক নেই।

সবকিছুই স্বাভাবিক ছিল, কিন্তু শিশুটির নাক ছিল না। শিশুটির নাম এলি রাখা হয়েছে। এলিকে যুক্তরাষ্ট্রের শিশু ও মহিলা হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সে স্বাভাবিকভাবে শ্বাস-প্রশ্বাস নিচ্ছিল।

কিন্তু, ডাক্তাররা তার মাত্র ৫ দিন বয়সেই শ্বাসনালীতে অস্ত্রোপচার করেন। যাতে তার জন্য সব কিছু স্বাভাবিক হয়ে যায়।

chi11

এলির এই কন্ডিশনের মত আর মাত্র ৪৩টি কেস রয়েছে। এরকম সমস্যা প্রথম ১৯৩১ সালে দেখা যায়। তখন এটি অনেক ভয়ানক রোগ ছিল। কারণ, ভালভাবে শ্বাসকার্য না করতে পারলে মৃত্যুর সম্ভাবনা রয়েছে। এরকম অনেক সমস্যায় দেখা যায়, বড় হবার পরও অনেকের এ সমস্যা রয়েছে।

এলির মা ডাক্তারদের সাথে সবসময় আলোচনা করেন এবং পরামর্শ নেন। তিনি ও তার পরিবার সবসময় লক্ষ্য রাখেন এলির শ্বাস-প্রশ্বাসে কোন প্রকার সমস্যা যেন না ঘটে। এলির মা-বাবা ও তার সম্পূর্ণ পরিবার খুব যত্ন সহকারে তার দেখাশোনা করছে।

chi22

এলির নাক ঠিক করার জন্য প্লাস্টিক সার্জারির অপশন রয়েছে। তবে তার মা আপাতত অপেক্ষা করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। তিনি এলির প্রাপ্তবয়স হবার পর সার্জারি করাবেন বলে চিন্তা করেছেন।–সূত্র: ভিরালাইক।