মেইন ম্যেনু

মন্ত্রীর নিজ এলাকাতেই সড়কের বেহালদশা

নোয়াখালী-৫ আসনের সাংসদ সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরের নিজ এলাকাতেই সড়কের বেহালদশা। নির্মাণাধীন নোয়াখালীর চৌমুহনী-ফেনীর চার লেনের সড়ক দেখে চরম হতাশ হন তিনি। এতে খেপেছেন দায়িত্ব্যে থাকা প্রধান ৪ (চার) কর্মকর্তার উপর। সংশ্লিষ্ট ঠিকাদার প্রতিষ্ঠানের কাজ বাতিলেরও সিদ্ধান্ত দেন মন্ত্রী।

শনিবার ঈদের দিন বিকেলে নোয়াখালীতে এসেই তাঁর আক্কেল গুড়ুম অবস্থা। নিজ এলাকার সড়কের কেন এই বেহাল দশা। এতেই চরম ক্ষোভ প্রকাশ করেন তিনি।

মন্ত্রী বলেন, ‘আমার সড়ক মন্ত্রিত্বের অভিজ্ঞতায় এসে নোয়াখালী রাস্তারঘাটের মতো এত বেহাল দশা আর কোথাও দেখি নাই।’

এক বছরের মধ্যে নোয়াখালী ও ফেনীতে দুটি ওভারব্রিজ করা আশ্বাস দিয়ে কাদের বলেন, আগামী এক বছরের মধ্যে নোয়াখালী ও ফেনীতে দুটি ওভারব্রিজ করবেন বলে প্রতিশ্রুতি দেন। এ ব্যাপারে তিনি শিগগিরই প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে কথা বলে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবেন। একি সাথে তিনি নিজ জেলায় রাস্তাঘাটের দুরবস্থার জন্য জনগণের কাছে দুঃখ প্রকাশ করেন।

সেই সঙ্গে দায়িত্বে থাকা প্রধান ৪ প্রকৌশলীকে কারণ দর্শানোর নোটিশ দেন সেতুমন্ত্রী। এ ছাড়া আগামী সাতদিনের মধ্যে সড়ক যানবাহনের চলাচলের উপযোগী করতে না পারলে নোয়াখালী ও ফেনীর নির্বাহী প্রকৌশলীকে বরখাস্তের নির্দেশও দেন তিনি।

উল্লেখ, নোয়াখালী-৫ আসনের এই সংসদ সদস্য ব্যস্ততার কারণে কিন্তু নিজ জেলা নোয়াখালীতেই খুব কম আসতে পারেন। সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রীর দায়িত্ব পাওয়ার কারণে প্রায় প্রতিদিন দেশের সড়ক-মহাসড়কে ঘুরে বেড়ান এবং সড়কের অবস্থা পর্যবেক্ষণ করেন।