মেইন ম্যেনু

নেতাকর্মীদের চাপে খুলে দেয়া হলো রমনার মূল ফটক

বিএনপির ৬ষ্ঠ কাউন্সিলকে কেন্দ্র করে বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে বাড়ছে নেতাকর্মীদের চাপ। ইঞ্জিনিয়ার্স ইন্সটিটিউশনে ঢোকার অনুমতি না পেয়ে নেতাকর্মীরা অবস্থান নিচ্ছেন সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে। কিন্তু সেখানেও স্থান সঙ্কুলান না হওয়ায় অনেক নেতাকর্মী অবস্থান নিয়েছেন পাশ্ববর্তী রমনা পার্কে।

শনিবার সকাল ১১টা পর্যন্ত রমনার মূল ফটক বন্ধ থাকলেও নেতাকর্মীদের চাপে এটি খুলে দেয়া হয়েছে।

বেশ ক’জন নেতাকর্মীর সঙ্গে আলাপ করে জানা যায়, সরওয়ার্দীতে অনেক চাপ বলেই তারা রমনা পার্কে অবস্থান নিয়েছেন।

মান্দা থেকে আগত বিএনপির নেতা আরিফুর রহমান বলেন, ‘ইঞ্জিনিয়ার্স ইন্সটিটিউটে আমাদের প্রবেশ করতে পারছি না। কিন্তু মাইকে ঘোষণা দিয়ে সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে প্রবেশ করতে বলা হয়েছে। কিন্তু সেখানেও ঢোকা যাচ্ছে না বলে আমরা রমনায় অবস্থান নিয়েছি।’ রাজশাহী থেকে আগত সেচ্ছাসেবক দলের নেতা সোহেলও একই কথা বলেন।

উল্লেখ্য, বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দলের (বিএনপি) জাতীয় ষষ্ঠ কাউন্সিল আনুষ্ঠানিকভাবে উদ্বোধন করেন দলের চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া। শনিবার বেলা পৌনে ১১টায় রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশনে বেলুন ও শান্তির প্রতীক পায়রা উড়িয়ে দলের ষষ্ঠ এ কাউন্সিল উদ্বোধন করেন তিনি।

‘দুর্নীতি দুঃশাসন হবেই শেষ, গণতন্ত্রের বাংলাদেশ’-এই স্লোগানকে সামনে রেখে দলের এ কাউন্সিল উদ্বোধন করেন বিএনপি চেয়ারপারসন। জাতীয় পতাকা উত্তোলন করেন দলের চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া এবং দলীয় পতাকা উত্তোলন করেন দলের ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।