মেইন ম্যেনু

পতাকা বৈঠকে সাড়া দিচ্ছে না মিয়ানমার

মিয়ানমার সীমান্ত পুলিশ (বিজিপি) কর্তৃক অপহৃত বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের (বিজিবি) নায়েক আবদুর রাজ্জাককে ফেরত দেবার বিষয়ে পতাকা বৈঠকে সাড়া দিচ্ছে না মিয়ানমার।

বৃহস্পতিবার সকাল ১০টায় টেকনাফ স্থলবন্দর রেস্ট হাউজে পতাকা বৈঠক অনুষ্ঠিত হবার কথা থাকলেও এখনও কোন সাড়া মেলেনি। ফলে নায়েক আবদুর রাজ্জাকের ফেরার বিষয়টি এখনও অনিশ্চিত।

বিজিবি কক্সবাজার সেক্টরের কমান্ডার কর্নেল আনিসুর রহমান বলেন, ‘মিয়ানমার সীমান্ত পুলিশের সাথে বৃহস্পতিবার সকাল ১০টায় পতাকা বৈঠকে বসার কথা ছিল। কিন্তু তাদের পক্ষ থেকে এখনও কোন সবুজ সংকেত মেলেনি। আমরা এখনও মিয়ানমার সীমান্ত পুলিশের অপেক্ষায় আছি।’

কর্নেল আনিসুর রহমান আরও বলেন, বিজিবি সদস্য নায়েক আবদুর রাজ্জাক মিয়ানমারের বিজিপির হেফাজতে রয়েছেন। তিনি নিরাপদ ও সুস্থ আছেন।

বুধবার সকালে দমমিয়া চেকপোস্টের বিপরীতে লালদিয়া নামক স্থানে একদল চোরকারবারিকে ধাওয়া করে বিজিবি সদস্যরা। একপর্যায়ে চোরকারবারিরা বিজিবির আওতার বাইরে চলে যায়। এ সময় মিয়ানমারের সীমান্ত পুলিশের সদস্যরা বিজিবির টহল দলের ওপর গুলিবর্ষণ করে। এতে বিজিবির সদস্য বিপ্লব গুলিবিদ্ধ হন। এ ঘটনায় বিজিবির নায়েক আবদুর রাজ্জাক নামে এক সদস্য নাফ নদীতে পড়ে গেলে মিয়ানমারের সীমান্ত পুলিশ তাকে ধরে নিয়ে যায়।

গোলাগুলির এই ঘটনাকে ভুল বোঝাবুঝি বলে মন্তব্য করেছেন স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল।

বুধবার স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে সাংবাদিকদের তিনি বলেন, টেকনাফে দুই দেশের সীমান্তরক্ষী বাহিনীর মধ্যে ভুল বোঝাবুঝির কারণেই মিয়ানমারের বর্ডার গার্ড পুলিশ (বিজিপি) গুলি চালিয়েছে।



« (পূর্বের সংবাদ)