মেইন ম্যেনু

পরকীয়ায় বাধা, বিষ খাইয়ে স্বামীকে হত্যা

রাজশাহী: দুর্গাপুর উপজেলায় পরকীয়ায় বাধা দেয়ায় খাবারের সঙ্গে বিষ মিশিয়ে স্বামীকে হত্যা করা হয়েছে। নিহতের নাম শফিকুল ইসলাম (৪৫)। ঘটনাটি ঘটেছে শনিবার (২৭ ফেব্রুয়ারি) রাতে উপজেলার বাশাইল গ্রামে। এ ঘটানায় ঘাতক স্ত্রীকে আটক করেছে পুলিশ।

পুলিশ জানায়, উপজেলার বাশাইল গ্রামের শফিকুল ইসলামের স্ত্রী তিন সন্তানের জননী মুনজুয়ারা বেগমের সঙ্গে একই গ্রামের মৃত ইদুর ছেলে আসলাম উদ্দিনের প্রায় দুই বছর ধরে পরকীয়ার প্রেমের সম্পর্ক চলে আসছিলো। এ নিয়ে শফিকুল প্রতিবাদ জানিয়ে আসলেও কোনো লাভ হয়নি। উল্টো তার সংসারে বিবাদ লেগেই থাকতো।

এরই ধারাবাহিকতায় শনিবার রাতে স্ত্রী মুনজুয়ারা বেগম প্রেমিক আসলাম উদ্দিনের কথামত শফিকুল ইসলামকে হত্যার উদ্দেশ্যে খাবারের সাথে বিষ মিশিয়ে রাখে। এরপর ওই খাবার রাতে শফিকুলকে খাওয়ায় মুনজুয়ারা।

খাবার খেয়ে শফিকুল ইসলাম রাতে ঘুমিয়ে পড়েন। একপর্যায়ে তিনি অসুস্থ হয়ে পড়েন। এরপর সকালে তার বাড়ির লোকজন বিষয়টি টের পেয়ে শফিকুলকে দ্রুত উদ্ধার করে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ (রামেক) হাসপাতালে ভর্তি করেন। বিকেলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান।

এই খবর ছড়িয়ে পড়লে স্ত্রী মুনজুয়ারার প্রেমিক আসলাম উদ্দিন এলাকা থেকে পালিয়ে যায়। পরে দুর্গাপুর থানা পুলিশ খবর পেয়ে শফিকুল ইসলামের বাড়িতে অভিযান চালিয়ে তার স্ত্রীকে আটক করে এবং লাশ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসে।

এ ঘটনায় দুর্গাপুর থানায় নিহত শফিকুলের বাবা বেরাজ উদ্দিন বাদী হয়ে মুনজুয়ারা ও আসলামকে আসামি করে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছেন।

দুর্গাপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) পরিমল কুমার চক্রবর্তী বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। এ ঘটনায় জড়িত থাকা সন্দেহে তার স্ত্রীকে আটক করা হয়েছে। নিহতের লাশ ময়নাতদন্তের জন্য রামেক হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।