মেইন ম্যেনু

পর্নো ছবির ফাঁদে ফেলে প্রতারণা, চক্র আটক

প্রথমে সুন্দরী মেয়েদের দিয়ে প্রেমের ফাঁদ। তারপর অভিজাত কোনো বাসা কিংবা আবাসিক হোটেলে মধুচক্র। সেখানে গোপনে অশ্লীল ভিডিও ধারণ। এরপরই শুরু হয় ইনকাম! ভিডিও ইন্টারনেটে ছেড়ে দেয়া হবে এমন ভয় দেখিয়ে হাতিয়ে নেয়া হয় লাখ লাখ টাকা।

এমনি এক প্রতারক চক্রের কবলে পড়েছিলেন নাহিদ মাতবর নামে এক ব্যবসায়ী। তিনি গত আট অক্টোবর রাজধানীর শ্যামপুর বালুর মাঠ এলাকায় এমনভাবে প্রতারিত হয়ে কদমতলী থানায় দুটি মামলা করেন। এর মধ্যে আইসিটি আইনে (৫৭ ধারা) এবং অন্যটি পর্নোগ্রাফি আইনে।

সেই প্রতারক চক্রের ছয় সদস্যকে আটক করেছে পুলিশ। আটককৃতরা হলেন রুবেল (২৮), সোহেল (২৬), নয়ন (৩০), শাওন (২৮), সাদ্দাম (৩০) এবং রাখাত (৩০)। এছাড়া এ চক্রের একাধিক নারী সদস্যসহ বিল্লাল (৪৫) ও আজিজুল (২০) পলাতক রয়েছেন।

মামলার তদন্ত কর্মকর্তা (এসআই) নুর আলম জানান, এ ধরনের চক্রগুলো বিভিন্নভাবে একজনকে পর্যবেক্ষণ করার পর ফাঁদে ফেলে। যাদের কয়েকজন পলাতক আছেন। পুরো চক্রকে ধরার চেষ্টা চলছে।