মেইন ম্যেনু

পুরুষদের আকর্ষণ ঠেকাতে ছাত্রীদের লম্বা স্কার্টের নির্দেশ

ছাত্র ও শিক্ষকরা যাতে ‘বিহ্ববল’ হয়ে না পড়ে সে জন্য কিশোরীদের হাটু পর্যন্ত লম্বা স্কার্ট পরার জন্য ছাত্রীদের আদেশ দিয়েছে নিউজিল্যান্ডের একটি স্কুল কর্তৃপক্ষ। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম গার্ডিয়ান সোমবার এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

অকল্যান্ডে হেন্ডারসন হাইস্কুল কর্তৃপক্ষ গত সপ্তাহে একাদশ শ্রেণির ৪০ ছাত্রীকে নিয়ে একটি বৈঠক করে। এতে স্কুলের উপাধ্যক্ষ চেরিথ টেলফোর্ড বলেন, ছাত্রীদের হাটু পর্যন্ত লম্বা স্কার্ট পরতে হবে।

এর কারণ হিসেবে তিনি বলেন, ‘আমাদের মেয়েদের নিরাপদ রাখতে, ছেলেদের বাজে চিন্তা থেকে মুক্ত রাখতে এবং পুরুষ কমকর্তাদের জন্য কাজের ভালো পরিবেশ সৃষ্টির জন্য’ এ পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে।

শ্যাডি টাটেল নামে এক ছাত্রী বলেছেন, ‘আমাদেরকে মূলত হাট পর্যন্ত লম্বা স্কার্ট পরতে বলা হয়েছে। এটি নার করলে স্কুল শেষে শাস্তি দেওয়া হবে বলেও জানানো হয়েছে।’

স্কুল কর্তৃপক্ষের এ সিদ্ধান্তের প্রতিবাদ জানিয়েছে অভিভাবক ও নারীবাদীরা। ম্যাসেই ইউনিভার্সিটির শিক্ষক এবং নারীবাদী ধারাভাষ্যকার ডেবোরাহ রাসেল বলেন, ‘এ সিদ্ধান্তে আমি খুবই বিরক্ত। এই বার্তা দ্বারা বোঝানো হচ্ছে, তরুণদের যৌন আচরণের জন্য তরুণীরাই দায়ী। এছাড়া এটা তরুণদের কাছে বার্তা দেয় যে তাদের যৌন আচরণ অনিয়ন্ত্রণযোগ্য।’

‘রেপ ক্রাইসিস’ নামের একটি নারীবাদী সংগঠনের নির্বাহী পরিচালক ডেবি তোহিল মনে করেন, স্কুলের ড্রেস কোড হিসেবে এটা ঠিক আছে। তবে স্কার্ট লম্বা করার যে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে, তাতে ছাত্র ও শিক্ষকদের বিহ্বলতা থেকে উদ্ধারের দায়ভার যেন তরুণী ও কিশোরীদের সেই বার্তাই দেওয়া হয়েছে।’