মেইন ম্যেনু

‘পূর্ব সতর্কতা ছাড়াই ‍গুলি করে তুরস্ক’

কোনো পূর্ব সতর্কতা ছাড়াই রুশ বিমান ভূপাতিত করেছে তুরস্ক। বিমানটি বেঁচে যাওয়া একমাত্র পাইলট একথা বলেছেন।

ক্যাপ্টেন কনস্তানতিন মুরাখতিন একটি রুম টেলিভিশনে বলেন, বিমানটি কোনোভাবেই তুর্কি আকাশসীমায় প্রবেশ করেনি। সিরীয় সীমান্তেই তুর্কিরা কোনো পূর্ব সতর্কতা না দিয়েই বিমানটি ভূপাতিত করেছে।

রাশিয়া জানিয়েছে, ১২ ঘণ্টার এক বিশেষ উদ্ধার অভিযানে ক্যাপ্টেন মুরাখতিনকে অক্ষত অবস্থায় উদ্ধার করা হয়েছে।

তবে তার সহকারী পাইলপের কী অবস্থা সে ব্যাপারে পরিষ্কার করে কিছু জানা যাচ্ছে না। বিমানটি ভূপাতিত করার সময় তিনি প্যারাসুটে করে অবতরণ করছিলেন। আর ওই সময় তুর্কি বাহিনী তাকে গুলি করে হত্যা করে।

ক্যাপ্টেন মুরাখতিন এখন মেমিন বিমানঘাঁটিতে অবস্থান করছেন। এই ঘাঁটি থেকেই সিরিয়া অভিযান পরিচালনা করছে রাশিয়া।

প্রসঙ্গত, এর আগেও রাশিয়ার যুদ্ধবিমান তুরস্কের আকাশসীমা অতিক্রম করেছিল। এই ঘটনার তীব্র প্রতিবাদ জানায় তুর্কি কর্তৃপক্ষ। বুধবারের ঘটনায় দুই দেশের কূটনৈতিক সম্পর্ক তলানিতে গিয়ে পৌঁছল। ইতিমধ্যে দুই দেশের সামরিক সহযোগিতা স্থগিত করা হয়েছে।