মেইন ম্যেনু

পৃথিবীতে ধেয়ে আসছে ৬টি গ্রহাণু!

৩০ সেপ্টেম্বর পৃথিবীর জন্য সুখকর নাও হতে পারে। জ্যোতির্বিজ্ঞানীরা আশংকা প্রকাশ করেছেন পৃথিবীর বুকে নতুন ট্রাজেডি ঘটতেও পারে। কেননা, আজ পৃথিবীকে পাশ কাটিয়ে প্রচণ্ড গতিতে অতিক্রম করবে ছ’টি প্রকাণ্ড গ্রহাণু। এর একটিও যদি পথভ্রষ্ট হয়ে পৃথিবীতে আছড়ে পড়ে, তবে মানব সভ্যতার দফরফা হয়ে যাবে।

অবশ্য ষড়যন্ত্র তাত্ত্বিকেরা এই ঘটনাকে পৃথিবীর ধ্বংসলীলা প্রত্যক্ষ করার শেষ সুযোগ হিসেবে আখ্যা দিয়েছেন। কারণ সেপ্টেম্বরে পৃথিবীতে গ্রহাণুর আঘাত হানার ঘটনা তারা বহু আগেই জানিয়েছিলেন।

গ্রহাণুগুলোর মধ্যে কয়েকটা এতই বড় যে এদের যেকোনো একটির সরাসরি আঘাত হানলে গোটা লন্ডন শহরের মত পুরো একটি শহর লন্ডভন্ড হয়ে যেতে পারে।

গ্রহাণুগুলোর একটির নাম দেয়া হয়েছে ‘গ্রহাণু-২০১৫ এস জেড ২’। এটি পৃথিবীর ৩ লক্ষ ১৬ হাজার মাইলের কাছাকাছি চলে আসবে।

নাসার মহাকাশ প্রোপালশান ল্যাবরেটরির স্পেস এক্সপ্লোরার রন বাল্কে তার এক টুইট বার্তায় জানান, ‘এই মহাজাগতিক গ্রহাণুগুলোর সন্ধান মাত্র দু’সপ্তাহ আগে পাওয়া গিয়েছে। মহাকাশের এই ধরনের ঘটনার খবর জানতে দেরি করা সত্যিই ভীতিকর।’

পৃথিবীকে পাশ কাটিয়ে চলে যাবে এমন গ্রহাণুগুলোর মধ্যে সবচাইতে বড়টির প্রস্থ ৩ শ’ মিটারের অধিক।

তবে আতঙ্কিত হওয়ার কিছু নেই। কারণ এসব সম্ভাব্যরূপে বিধ্বংসী গ্রহাণুগুলো ৬ মিলিয়ন মাইল দূর হতে পৃথিবীকে পাশ কাটিয়ে দ্রুত গতিতে অতিক্রম করবে।

গত সপ্তাহে ‘২০১২ টিটি৫’ নামক ২৭০ মিটারের একটি গ্রহাণু আমাদের পৃথিবীকে দ্রুত গতিতে পাশ কাটিয়ে চলে গিয়েছিলো। তখনও অনেকেরই পিলে চমকে গিয়েছিল।