মেইন ম্যেনু

পৌর নির্বাচনে এমপিরা কেন প্রচারণায় অংশ নিতে পারবে না?

পৌরসভার নির্বাচনে সংসদ সদস্যরা কেন প্রার্থীর পক্ষে প্রচারণায় অংশ নিতে পারবেন না, তা জানতে চেয়ে রুল জারি করছেন হাইকোর্ট।

এ বিষয়ে দায়ের করা এক রিট আবেদনের শুনানি করে বিচারপতি সৈয়দ মোহমাম্মাদ দস্তগীর হোসেন ও বিচারপতি একেএম শহিদুল হকের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ সোমবার এ আদেশ দেন।

আগামী ২ সপ্তাহের মধ্যে এ রুলের জবাব দিতে বলা হয়েছে আদেশে। স্থানীয় সরকার সচিব, আইন সচিব, স্বরাষ্ট্র সচিবসহ মোট আটজনকে এ রুলের জবাব দিতে বলা হয়েছে।

এদিকে রিট আবেদনের পক্ষে শুনানি করেন নুরুল ইসলাম সুজন।

পৌরসভা নির্বাচন বিধিমালা ২০১৫ এর কয়েকটি ধারা চ্যালেঞ্জ করে হাইকোর্টে রিট আবেদনটি করা হয়। রিটে এমপিরা কেন পৌর নির্বাচনের প্রচারণার অংশ নিতে পারবেন না এ মর্মে নির্দেশনা চাওয়া হয়। গত রোববার বিকেলে সুপ্রিম কোর্টের আইনজীবী একেএম নরুন্নবী সুমন হাইকোর্টের সংশ্লিষ্ট শাখায় এ রিট পিটিশনটি দায়ের করেন।

নরুন্নবী সুমন সাংবাদিকদের জানান, নির্বাচন কমিশন থেকে জারিকৃত পৌরসভা নির্বাচন বিধিমালা ২০০৯ এ সংসদ সদস্যরা পৌর নির্বাচনী এলাকায় প্রচারণনায় অংশ নেয়ার ব্যাপারে কোনো বিধি নিষেধ ছিল না। কিন্তু পৌরসভা নির্বাচন বিধিমালা ২০১৫ তে এ সুযোগ রহিত করা হয়।

তিনি বলেন, ‘বিধিমালার ২ এর ১২ তে বলা আছে লাভজনক পদে আছেন এমন ব্যক্তি প্রচারণায় অংশ নিতে পারবেন না। এছাড়া ২ এর ২২ তে বলা হয়েছে সংসদ সদস্যরা সরকারি সুযোগ-সুবিধা ভোগ করছেন তাই তারা পৌরনির্বাচনের প্রচারণায় অংশগ্রহণ করতে পারবেন না।’

এ আইনজীবী বলেন, ‘সংসদ সদস্যরা সরকারি সুযোগ-সুবিধা ও বেতনভোগী না। তারা শুধুমাত্র ভাতা পাচ্ছেন। তাই এ ধারা চ্যালেঞ্জ করে রিট করা হয়েছে।’