মেইন ম্যেনু

প্যানক্রিয়াটাইটিস কী ও কেন?

ভেজালের জালে আটকে সুস্থ থাকাটা বেশ কঠিন কাজ। যখন তখন বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত হওয়া যেন অস্বাভাবিক কিছু না। নানা রোগের মধ্যে প্যানক্রিয়াটাইটিস বা অগ্নাশয়ের প্রদাহ অন্যতম। প্যানক্রিয়াস দেখতে অনেকটা পাতার মতো। উপরের পেটে লম্বালম্বিভাবে এর অবস্থান। অগ্ন্যাশয় ইনসুলিনসহ বিভিন্ন প্রকার হরমোন ও এনজাইম তৈরি করে। শরীরে কার্বোহাইডেট, চর্বি ও প্রোটিন জাতীয় খাবার হজম করতে সাহায্য করে। প্যানক্রিয়াটাইটিস হলে অগ্ন্যাশয় ঠিকমতো কাজ করতে পারে না।

এসময় প্যানক্রিয়াসে জালাপোড়া ছাড়াও পাথর, সিস্ট, টিউমার এবসেস ইত্যাদি রোগ দেখা যায়। প্যানক্রিয়াস গ্রীক শব্দ যার অর্থ অগ্নি বা আগুন। অর্থাৎ এই প্যানক্রিয়াস (এর টিউমার বা প্রদাহ) এমনই একটি অঙ্গ যার প্রদাহ নিঃসৃত হরমোন বা এনজাইম আশপাশের সবকিছুকে ধ্বংস করে দেয়।

প্যানক্রিয়াটাইটিস হওয়ার অনেক গুলি কারণ রয়েছে। এগুলির মধ্যে-

– পিত্তথলিতে বা পিত্তনালীতে পাথর হওয়া।

– ব্যাকটেরিয়া বা ভাইরাসজনিত কারণ।

– আঘাতজনিত কারণ।

– পেটে অপারেশনজনিত কারণ।

– অতিরিক্ত অ্যালকোহল পান।

প্যানক্রিয়াটাইটিস হলে বেশ কিছু লক্ষণ দেখা যেতে পারে-

– হঠাৎ করেই প্রচণ্ড পেটে ব্যথা হয়।

– তৈলাক্ত খাবার খাওয়ার পর এই ব্যথা বেশি হয়।

– বমি ভাব বা বমি হতে পারে।

– পেট তুলনামূলকভাবে নরম থাকে।

যে কারো এই ধরনের সমস্যা দেখা দিলে জরুরি ভিত্তিতে অভিজ্ঞ ডাক্তারের পরামর্শ নিতে হবে।