মেইন ম্যেনু

প্রথমবারের মত ব্যবসার আগ্রহ দেখিয়েছে সৌদি : প্রধানমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রী ও সংসদ নেতা শেখ হাসিনা বলেছেন, তার সৌদি আরব সফরে রাজনৈতিক, অর্থনৈতিক, বাণিজ্যিক ও নিরাপত্তা বিষয়ে সম্পর্ক উন্নয়নে এক নতুন ও পূর্ণাঙ্গ ভিত্তি তৈরি হয়েছে। সৌদি সরকার ও ব্যবসায়ী নেতৃবৃন্দ স্বতঃস্ফূর্তভাবে এই প্রথমবার বাংলাদেশে বিনিয়োগ ও ব্যবসা বৃদ্ধিরও আগ্রহ প্রকাশ করেছেন।

জাতীয় সংসদের বৈঠকে বুধবার প্রধানমন্ত্রীর জন্য নির্ধারিত প্রশ্নোত্তর পর্বে নওগাঁর এমপি হুইপ শহিদুজ্জামান সরকারের সম্পূরক প্রশ্নের জবাবে এসব কথা বলেন তিনি। এসময় শহিদুজ্জামান সরকার প্রধানমন্ত্রীর সম্প্রতি সৌদি সফরের সফলতা সম্পর্কে জানতে চান।

জবাবে শেখ হাসিনা তার সৌদি আরবের সফর সম্পর্কে বিস্তারিত বর্ণনা দিয়ে বলেন, সৌদি আরবের ব্যবসায়ী নেতৃবৃন্দ বাংলাদেশে ব্যবসা ও বিনিয়োগের অফুরন্ত সুযোগ জেনে আনন্দিত হন এবং তারা বাংলাদেশে বিনিয়োগ ও ব্যবসা করার আগ্রহ প্রকাশ করেন।

তিনি বলেন, সবশেষে আমার উপস্থিতিতে সৌদি আরবের নির্মাণ প্রতিষ্ঠান বাংলাদেশ থেকে দক্ষ অদক্ষ শ্রমিক নেওয়ার জন্য সেনাকল্যাণ সংস্থার সঙ্গে একটি সমঝোতা স্মরক স্বাক্ষর করেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, সৌদি আরবের এই সফর বাংলাদেশ ও সৌদি আরবের সম্পর্ককে এক নতুন মাত্রায় নিয়ে গেছে। বাংলাদেশের অর্থনৈতিক ও সামাজিক উন্নয়ন নারীর ক্ষমতায়নে সফলতা মুসলিম বিশ্বে রোল মডেল হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হয়েছে বলে সৌদি নেতৃবৃন্দ মত প্রকাশ করেন।

সৌদি আরবের সঙ্গে বাংলাদেশের এই নতুন সম্পর্কের ফলে মুসলিম বিশ্বে বাংলাদেশে গুরুত্ব বৃদ্ধি পাবে ও ভাবমূর্তি আরো উজ্জ্বলতর হবে বলে আশা প্রকাশ করেন প্রধানমন্ত্রী।

তিনি বলেন, এই সফর বাংলাদেশ ও সৌদি আরবের ভ্রাতৃপ্রতিম দৃঢ় ভিত্তির উপর প্রতিষ্ঠিত করার পাশাপাশি বাংলাদেশের সঙ্গে মুসলিম বিশ্বের সম্পর্কের ক্ষেত্রে গতিশীলতা আনবে। এই সফরের মাধ্যমে মুসলিম বিশ্বে আওয়ামী লীগ সরকারের দুরদর্শী নেতৃত্ব পূর্ণ স্বীকৃত হয়েছে।