মেইন ম্যেনু

প্রবল বর্ষণে তলিয়ে গেছে রাউজান: জন দুর্ভোগ চরমে

টানা তিন দিনের প্রবল বর্ষণে চট্টগ্রামের রাউজান উপজেলার অধিকাংশ এলাকা পানির নিচে তলিয়ে গেছে। উপজেলার গুরুত্বপূর্ণ সড়ক ও রাঙ্গামাটি মহাসড়কসহ বিভিন্ন এলাকা ডুবে গেছে। ১৪টি ইউনিয়ন ও একটি পৌর এলাকার হাজার হাজার মানুষ এখনো পানিবন্ধী রয়েছে। টানা বর্ষণে হালদা, সর্ত্তা ও ডাবুয়া খালের পানি ব্যাপক বৃদ্ধি পেয়েছে।

বিভিন্ন জায়গায় খালের বাধ ভাঙ্গায় রাউজান সদরসহ নিচু এলাকা হাটু ও কোমর সমান পানিতে তলিয়ে গেছে। সর্তা খালের প্রবল স্রোতে উত্তর হলদিয়া চাদতেলির বাড়ী পাশে ১১ হাজার লাইনের পল্লি বিদ্যুতের খুটি ও তার পানিতে তলিয়ে গেছে। সর্তার প্রবল স্রোতে খুটিসহ তার পানিতে পড়ে যাওয়ায় প্রায় সে এলাকার ৩০০ পরিবার বিদ্যুৎ বিচ্ছন্ন হয়ে পড়েছে।

ঐ এলাকায় সমাজ সেবক ও মাদ্রাসা শিক্ষক মৌলানা দিদারুল আলম জানান সর্তার প্রবল স্রোতে খুটিটি সর্তা খালের বর্ষণে জনসাধারন বিপর্যস্থ হয়ে পড়েছে। চিকদাইরে মাঠির অসংখ্য ঘরবাড়ী ভেঙ্গে যাওয়ার খবর পাওয়া গেছে। এদিকে উপজেলার নোয়াজিষপুর ইউনিয়ন, গহিরা ইউনিয়ন, চিকদাইর ইউনিয়ন, ডাবুয়া ইউনিয়নসহ বিভিন্ন ইউনিয়নের অধিকাংশ এলাকা হাটু ও কোমর পানির নিচে তলিয়ে গেছে। ঐ এলাকার হাজার হাজার জনসাধারণ পানিবন্দি হয়ে পড়েছে।

ব্যাহত হচ্ছে শিক্ষাকার্যক্রম, যোগাযোগ ব্যবস্থা, চিকিৎসা সেবাসহ অসহনিয় দূর্ভোগে পড়েছে জনজীবন। স্থানীয়রা জানান ক্ষতিগ্রস্থ এলাকায় এখনো পর্যন্ত কোন ধরনের সরকারি বা বেসরকারি সাহার্য্য সহযোগিতা বা ত্রাণ সামগ্রী পাওয়া যায়নি। উপজেলার জন প্রতিনিধিরা জানান, টানা বর্ষণ শেষে এখন একটু বৃষ্টি থেমেছে এবার আমরা ক্ষতিগ্রস্থ এলাকায় সরজমিনে গিয়ে ক্ষতিগ্রস্থ প্রতিটি পরিবারকে সরকারি বা বেসরকারি উদ্যোগে সাহার্য্য সহযোগিতার ব্যবস্থা করা হবে।