মেইন ম্যেনু

প্রবাহমান বালুর নদী (ভিডিও)

নদী বলতে সেখানে পানি থাকাটাই স্বাভাবিক। আর পানি থাকলে সেখানে থাকবে ঢেউ আর স্রোতের বহমানতা। তবে নদীটি যদি বালুর হয় আর সেখানে যদি দিন রাত প্রবাহিত হতে থাকে ঠান্ডা বালুর প্রবাহ তাহলে অবাক হবার কিছুই নেই। ইরাকের একটি বালুকাময় মরুভূমিতে পাওয়া গেল এমনি একটি বালুর নদীর সন্ধান যেখানে নদীর পানির চেয়েও দ্রুত প্রবাহিত হচ্ছে ঠান্ডা বালু। তবে বালুর নদীতে যে পানি নেই বললে ভুলই হবে। বালুর নদীতে পানি আছে ঠিকই কিন্তু বালির তুলনায় পানির পরিমান একটাই কম যে হাত দিয়ে পানি ধরতে চাইলে হাতে উঠে আসে বালু।

ইরাকের এই মরুভূমি অঞ্চলটি দীর্ঘদিন সবার নজরের বাইরে ছিল। সম্প্রতি মরুভূমির এই বালুর নদীটি ইন্টারনেটে ভাইরাল হয়ে যাবার পর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোতে হৈচৈ পড়ে যায়। আসতে থাকে প্রচুর লাইক ও কমেন্ট। বিভিন্ন সংবাদমাধ্যম সূত্রে জানা যায়, নভেম্বরে মধ্যপ্রাচ্যের কিছু দেশ যেমন ইরাক, ইসরায়েল, জর্ডান এবং সৌদি আরবের মতো কিছু দেশে হঠৎ করেই আবহাওয়ার বেশ পরিবর্তন ঘটে। উত্তপ্ত মরুভূমিতে শুরু হয় টানা তুষারপাত, ঝড় সেই সঙ্গে ভারি বর্ষণ। সেই তুষারখণ্ড আর বৃষ্টির পানিই নাকি বালির সঙ্গে মিলেমিশে বাতাসের বেগে বইতে শুরু করে। এক সময় এই পানি আর তুষারকণাগুলো গিয়ে আটকাতে শুরু করে ইরাকের মরুভূমির বালির ভেতর। ক্রমে ক্রমে প্রকৃতির খেলায় সেগুলো জমাট বেঁধে রূপ নেয় বরফে। আর সেই বরফগুলো তৈরি করে বরফ নদীর। বর্তমানে অবশ্য এই নদীকে স্থানীয়রা বালুর নদী বলেই ডাকছে। নীচে বালুর নদীর ভিডিও চিত্রটি পাঠকদের জন্য তুলে ধরা হলো।

ভিডিওটি দেখতে এখানে ক্লিক করুণ…