মেইন ম্যেনু

প্রেমিকাকে খুশি রাখতে ছাত্র থেকে চোর!

প্রেমিকাকে খুশি করতেই নাকি চুরি করত প্রেমিক। ধরা পড়ে পুলিশকে এমনটাই জানিয়েছে চোর। আর সেই চোরের কাছ থেকে উদ্ধার করা হয়েছে- ১২টি ল্যাপটপ, মোবাইল ফোন, ডেবিট কার্ড, হার্ডডিস্ক ও অন্যান্য জিনিসপত্র।

চোরের নাম বীরেশ আঙ্গাদি (২৭)। ভারতের দাবানাগেরের বাসিন্দা ওই যুবককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। শপিং মল, হাসপাতাল ও রেস্টুরেন্টে পার্কিং এলাকা থেকে গাড়ির জানালা ভেঙে এই জিনিসগুলো চুরি করেছিল বীরেশ। গাড়ির জানালা কাটতে ব্যবহার করত ডায়মন্ড কাটার। এমনকি পড়ালেখাও ছেড়ে দেয় সে।

বীরেশের ধরা পড়ার কায়দাটিও অদ্ভুত। রেস্টুরেন্টে মদ পানের পর চুরি করা ডেবিট কার্ডগুলো দিয়ে বিল পরিশোধ করে সে। আর তাতেই পুলিশের কাছে চলে আসে তথ্য।

এরপর ওই রেস্টুরেন্টের সিসিটিভির ফুটেজ দেখে পুলিশ ধরে ফেলে বীরেশকে। তাকে থানায় নিয়ে এসে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। আর ওই সময়ই সে দাবি করে, এতোদিন সে যা চুরি করেছে, সবই নাকি তার প্রেমিকাকে খুশি রাখতেই!