মেইন ম্যেনু

প্রেমিকার প্রস্তাবে বোরকা পরে কলেজে এসে ধরা খেল প্রেমিক! অতঃপর ঘটলো কান্ড…

প্রেমিকার প্রস্তাব মেনে নিয়ে বোরকা পরে কলেজে এসে ধরা খেলেন একাদশ শ্রেণীর এক ছাত্র।
এ নিয়ে চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়েছে।

ঘটনাটি ঘটেছে রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দি উপজেলার নারুয়া লিয়াকত আলী স্কুল অ্যান্ড কলেজে।

রোববার সকালে বোরকা পরে কলেজে প্রবেশ করেন ওই ছাত্র। তার চলাফেরায় সন্দেহ হলে তাকে আটক করা হয়। পরে তাকে বালিয়াকান্দি থানা পুলিশে সোপর্দ করা হয়।

ওই ছাত্রের নাম সোহাগ বিশ্বাস। তার বাবার নাম গফুর বিশ্বাস। তার বাড়ি উপজেলার নারুয়া ইউনিয়নের বিলধামু গ্রামে। তিনি নারুয়া লিয়াকত আলী স্মৃতি উচ্চ বিদ্যালয় অ্যান্ড কলেজের একাদশ শ্রেণীর ছাত্র।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, সোহাগ বিশ্বাস সকালে বোরকা পরে কলেজে আসে। তার পায়ের সেন্ডেল দেখে বোঝা যায় তিনি ছেলে।

পরে তাকে আটক করা হয়। বিষয়টি জানাজানি হলে থানার এসআই অঙ্কুর ভট্টাচার্য্য তাকে আটক করে থানায় নিয়ে যায়।

আটককৃত সোহাগ বিশ্বাস জানান, তিনি ওই স্কুলের সপ্তম শ্রেণীতে অধ্যয়নরত এক ছাত্রীকে প্রেমের প্রস্তাব দেয়।

তিনি জানান, ওই ছাত্রী তাকে বলে- তিনি বোরকা পরে স্কুলে আসতে পারলে ভালোবাসবে বলে জানায়। ওই ছাত্রীর কথামতো তিনি বোরকা পরে এসে ধরা পড়েন।

বালিয়াকান্দি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জাহিদুল ইসলাম পিপিএম জানান, আটককৃত ছাত্রকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। জিজ্ঞাসাবাদের পর জানতে পারব কেন বোরকা পরে কলেজে এসেছিল।