মেইন ম্যেনু

ফারাক্কার বাঁধ ভারতের জন্য মরণফাঁদ : মায়া

ফারাক্কা বাঁধ এখন ভারতের নিজের জন্যই মরণফাঁদ হয়ে দাঁড়িয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণমন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া। রোববার দুপুরে চাঁদপুর জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে আইন-শৃঙ্খলা কমিটির মাসিক সভায় তিনি এ কথা বলেন।

ত্রাণমন্ত্রী বলেন, একসময় আমরা বলেছি ফারাক্কার বাঁধ আমাদের জন্য মরণফাঁদ। কিন্তু এখন তা ভারতের জন্য মরণফাঁদ হয়ে দাঁড়িয়েছে। ভারতের অনেকে একে মরণফাঁদ বলছেন। তারা ফারাক্কার পুরো বাঁধ ছেড়ে দিলে কিংবা ভেঙে দিলে আমাদের দেশে কোনো ধরনের সমস্যা হবে না। পদ্মার পানি এখনো বিপদসীমার নিচে আছে।

ত্রাণমন্ত্রী আরো বলেন, দুর্যোগ মোকাবেলায় আমার মন্ত্রণালয়ের সার্বিক প্রস্তুতি রয়েছে। ক্ষতিগ্রস্ত লোকদের সহায়তার জন্য আমরা নভেম্বর পর্যন্ত প্রস্তুতি নিয়ে রেখেছি। ফারাক্কা বাঁধের পানিতে আমাদের কোনো ধরনের সমস্যা হবে না বলে আমরা মনে করি।

জেলা প্রশাসক মো. আবদুস সবুর মণ্ডলের সভাপতিত্বে সভায় আরও বক্তব্য দেন পুলিশ সুপার শামসুন্নাহার, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও মেয়র নাছির উদ্দিন আহমেদ, সাধারণ সম্পাদক আবু নঈম পাটওয়ারী, নৌ-পুলিশের এসপি সুব্রত কুমার হালদার, নারী মুক্তিযোদ্ধা সৈয়দা বদরুন্নাহার চৌধুরী প্রমুখ।

সভায় আগামী ঈদুল আজহায় কোরবানির পশুর হাট নিয়ন্ত্রণ ও চাঁদপুরের নৌ, সড়ক ও রেলপথে যাত্রীদের নিরাপত্তা বৃদ্ধির জন্য সংশ্লিষ্টদের ব্যবস্থা গ্রহণের নির্দেশ দেয়া হয়।

সন্ধ্যায় ত্রাণমন্ত্রী চাঁদপুর পুলিশ লাইনসে মাদক ও জঙ্গিবাদ সংক্রান্ত রচনা প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করেন।