মেইন ম্যেনু

ভারতের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের দাবি

ফেলানী হত্যায় তার বাবা দায়ী

কুড়িগ্রাম সীমান্তে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী (বিএসএফ) এর হাতে বাংলাদেশি কিশোরী ফেলানী হত্যার জন্য তার বাবা নুরুল ইসলাম দায়ী বলে দাবি করেছে ভারতের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়।

ফেলানী হত্যার ঘটনায় ভারতীয় মানবাধিকার কমিশনের পক্ষ থেকে দেশটির কেন্দ্রীয় সরকারকে দেওয়া এক চিঠির জবাবে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এ দাবি করেন।

উল্লেখ্য, ২০১১ সালের ৭ জানুয়ারি বাংলাদেশ-ভারত সীমান্তে কুড়িগ্রামের অনন্তপুর-দিনহাটা সীমান্তের খিতাবেরকুঠি এলাকায় ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিএসএফ-এর সদস্যরা ফেলানী খাতুনকে গুলি করে হত্যা করে। পরে তার লাশ পাঁচ ঘণ্টা কাঁটাতারের বেড়ায় ঝুলিয়ে রাখা হয়।