মেইন ম্যেনু

ফোন সেক্স করছেন? জেনে নিন এর ভয়ঙ্কর কুফল, শুনলে আতকে উঠবেন

ফোন সেক্স – পুরুষদের যৌন দুর্বলতা এবং দ্রুত বীর্যপাতের কারণ প্রযুক্তির অপব্যবহারে অবস্থা এখন এমন পর্যায়ে পৌছেছে যে, চিকিত্সকরা নির্দিধায় বলতে বাধ্য হচ্ছেন, ভয়াবহ যৌন দুর্বলতা সৃষ্টি হতে পারে ফোন সেক্স এর মত খারাপ অভ্যাসের কারণে৷ এমনকি, লিঙ্গশীতলতা, দ্রুত বীর্যপাত এবং পুরুষত্বহীনতার মতো রোগেও আক্রান্ত হতে পারে ফোন সেক্সে৷তাই যদি এ ধরনের অভ্যাসে আসক্ত হয়ে থাকেন তাহলে এক্ষুনি সতর্ক হন।

ফোন সেক্স বিষয়টা কি?

ফোনের মধ্যে দিয়েই ছেলে এবং মেয়ের অন্তরঙ্গতা বেড়ে চলা৷পোশাকের বিবরণ থেকে তারপর ফোনের মধ্যেই শরীরের থেকে সব পোশাক খুলে নেওয়া৷ কথার মধ্যে দিয়ে আপদমস্তক আদর৷ আর সে আদর বাড়তে বাড়তে একেবারে যৌনমিলন৷ প্রতিটি ভঙ্গির নিঃখুত বিবরণ৷ কখনও কোথায় হাত যাচ্ছে, কখন কোথায় যাচ্ছে ঠোঁট, মুখ, যৌনাঙ্গ৷ সবই কথায় কথায় ফোন থেকে সোজা শরীরে৷ ফোনের কথায় কাছে আসা, শেষমেশ স্বমৈথুনের মধ্যে দিয়েই এ যেন দূরে থেকে কাছে আসার ফন্দি৷ ‘

ফোন সেক্স’ এমনই এক আদবকায়দা যেখানে এক মুহূর্তের জন্যে ভুলে যাওয়া, প্রিয়মানুষটি দূরে আছে৷ কিন্তু জানেন কি? রুমা-অমিত একা নয়, একরকম অভ্যাসে আসক্ত বহু প্রেমিক-প্রেমিকাই৷ কাজের খাতিরে দূর দেশে পাড়ি দিয়ে প্রিয় মানুষকে কাছে পাওয়ার একটা অভিপ্রায় এই ‘ফোন সেক্স’৷ তবে এই অভ্যাস একেবারেই যে সু-অভ্যাস নয়, তা বলছেন যৌনরোগ বিশেষজ্ঞরা৷ চিকিৎসকদের মতে, ‘ফোন সেক্স’ একটা নেশা৷ এই নেশা যতদিন যায় ততই বাড়তে থাকে৷ ডাক্তারদের কথায়, যৌন দুর্বলতা আনতে পারে এই ধরণের অভ্যাসে৷ এমনকি, লিঙ্গশীতলতা, দ্রুত বীর্যপাত এবং পুরুষত্বহীনতার মতো রোগেও আক্রান্ত হতে পারে ফোন সেক্সে৷ তবে উপায় আছে, এর থেকে রেহাই পাওয়ারও৷

অভ্যাস ত্যাগ করার জন্য প্রথমেই শক্ত হতে হবে দু’পক্ষকে৷ প্রেমিক চাইলে, প্রেমিকাকে সামলাতে হবে পুরো ব্যাপারটা৷ উলটোটিও ঘটতে পারে৷ বেশি রাতে প্রেমিক বা প্রেমিকার সঙ্গে কথা বলা বন্ধ করুন৷ তাহলে দেখবেন আসতে আসতে ফোন সেক্স বন্ধ হয়ে যাবে৷ প্রিয়জনের সঙ্গে কথা বলুন খোলামেলা জায়গায় দাঁড়িয়ে৷ বাড়ির বারান্দা বা ছাদকে বেছে নিন৷ পরিবার, বন্ধুবান্ধব, সমসাময়িক বিষয় নিয়ে কথা বলুন৷ প্রেমের কথা থাকলেও তাতে যেন যৌনতার উসকানি না থাকে৷ বিয়ের কথা উঠতেই পারে৷ তবে ফুলশয্যার কথা আলোচনা না করে৷ বরং সংসার গোছানোর কথা বলুন৷ সিনেমা, সাহিত্য, গান-বাজনা নিয়ে কথা বলুন৷