মেইন ম্যেনু

বখাটের হাত থেকে স্কুলপড়ুয়া মেয়েকে বাঁচাতে মা-মেয়ের প্রেসক্লাবে অবস্থান

বখাটেদের হাত থেকে স্কুলপড়ুয়া মেয়েকে বাঁচাতে রোববার দুপুর থেকে খুলনা প্রেসক্লাবে অবস্থান নিয়েছে স্কুলছাত্রী ফারজানা আক্তার অনামিকা (১৪) ও তার মা মমতাজ বেগম।

ফারজানা নগরীর ফুলবাড়িগেট ইউসুফ এমএ মজিদ স্কুলের জেএসসি পরীক্ষার্থী।

জানা গেছে, স্কুলে যাওয়া-আসার পথে প্রায়ই একই এলাকার নান্টু মোল্লার ছেলে নাঈম মেয়েটিকে উত্যক্ত করত। বিষয়টি বাড়াবাড়ির পর্যায়ে গেলে গত ১১ জুন ফারজানার পরিবার দৌলতপুর থানা পুলিশকে বিষয়টি অবহিত করে। এরপর পুলিশ বখাটে নাঈমকে আটক করে। পরে ওই দিনই তাকে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আল-মামুন ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে তাকে ছয় মাসের কারাদন্ড দেন।

এ ঘটনার পর থেকে ওই বখাটের বন্ধু-বান্ধব ও আত্মীয়রা প্রতিশোধ নেওয়ার জন্য মরিয়া হয়ে ওঠে।

খুলনা প্রেসক্লাবে স্কুলছাত্রী ফারজানা জানান, প্রতিনিয়ত তাদের গতিবিধি অনুসরণ করা হচ্ছে। এর মধ্যে দুদিন আগে বাড়িতে হামলা করে মালামাল ভাঙচুর ও লুটপাট করা হয়েছে। তাদেরকে মেরে ফেলার হুমকি দেওয়া হচ্ছে।

ফারজানার মা মমতাজ বেগম জানান, রোববার সকালে দৌলতপুর থানায় গেলে তাদেরকে আদালতে মামলা করতে বলা হয়। বাড়িতে যেতে চাইলে পুলিশ তাদেরকে বলেছে, সেখানে কোনো ধরনের ক্ষতি হলে তার দায় তারা নেবে না।

বাংলাদেশ মানবাধিকার বাস্তবায়ন সংস্থার খুলনার সমন্বয়কারী মোমিনুল ইসলাম জানান, অসহায় অবস্থায় জীবন বাঁচাতে মা-মেয়ে খুলনা প্রেসক্লাবে অবস্থান নিয়েছে। তাদের আইনি সহায়তা দেওয়ার অনুরোধ জানান তিনি।