মেইন ম্যেনু

বাংলাদেশের শীর্ষ ১০ ধনীরা কে কত টাকার মালিক?

বাংলাদেশ আয়কর বিভাগ থেকে সদ্য ঘোষিত দেশের শীর্ষ ১০ জন ধনী ব্যাক্তির তালিকায় এক নম্বরে রয়েছেন চট্টগ্রামের ধনাঢ্য ব্যবসায়ী শওকত আলী চৌধুরী। তিনি ফিনলে প্রপার্টিজ-এর পরিচালক ও অংশীদার। এ ছাড়া তিনি ইস্টার্ণ ব্যাংক-এরও পরিচালক।

২০১৩-১৪ কর বর্ষের সম্পদ বিবরণীর ভিত্তিতে অভ্যন্তরীণ সম্পদ বিভাগের তথ্য অনুযায়ী, দেশে ১০০ কোটি টাকার বেশি নিট সম্পদের মালিক রয়েছেন ২৫ জন। আর ৫০ কোটি বা তার চেয়ে বেশি টাকার নিট সম্পদের মালিকের সংখ্যা ৪৭। অর্থসম্পদের মালিকানা হিসাবে দেশের এক নম্বর শীর্ষ ধনী হিসেবে ঘোষিত হয়েছেন চট্টগ্রামের শওকত। দায় দেনা বাদ দিয়ে তার মোট নীট সম্পদের পরিমাণ টাকার অংকে ২৭৫ কোটি টাকা।

দেশের শীর্ষ ১০ সম্পদশালী ব্যক্তির তালিকায় ২য় অবস্থানে রয়েছেন নাভানা গ্রুপের সাইফুল ইসলাম, যার নিট সম্পদের পরিমাণ ২৭০ কোটি টাকা। তৃতীয় অবস্থানে আছেন বসুন্ধরা গ্রুপের সাদাত সোবহান। তার নিট সম্পদের পরিমাণ ২০৫ কোটি টাকা। ২০০ কোটি টাকা নিট সম্পদ নিয়ে তালিকার চতুর্থ স্থানে রয়েছেন হোসাফ গ্রুপের মোয়াজ্জেম হোসেন।

তালিকার পঞ্চম স্থানে রয়েছেন বেক্সিমকো গ্রুপের ভাইস চেয়ারম্যান সালমান এফ রহমান, যার নিট সম্পদের পরিমাণ ১৬৫ কোটি টাকা। শীর্ষ সম্পদশালীর তালিকায় এর পরের স্থানে রয়েছেন আফরোজা বেগম। তার নিট সম্পদের পরিমাণ ১৫৮ কোটি টাকা।

১৫৫ কোটি টাকা নিট সম্পদ নিয়ে সপ্তম স্থানে রয়েছেন বসুন্ধরা পরিবারের আরেক সদস্য সাফওয়ান সোবহান। সম্পদশালীদের তালিকায় সবচেয়ে বেশি সদস্য রয়েছেন আকিজ পরিবারের। এ পরিবারের পাঁচ সদস্য এস কে বশিরউদ্দিন, এস কে জামিল উদ্দিন, এস কে জসিম উদ্দিন, শেখ শামীম উদ্দিন ও শেখ নাসির উদ্দিন প্রত্যেকেই ১৪০ কোটি টাকার নিট সম্পদের মালিক। ১৪০ কোটি টাকার নিট সম্পদের মালিক প্রাইম ব্যাংকের পরিচালক এম এ খালেকও। যৌথভাবে তারা রয়েছেন তালিকার অষ্টম স্থানে।

১৩৭ কোটি টাকার নিট সম্পদ নিয়ে তালিকার নবম স্থানে রয়েছেন বেক্সিমকো গ্রুপের চেয়ারম্যান সোহেল এফ রহমান। ১৩৫ কোটি টাকার নিট সম্পদ নিয়ে মঞ্জুরুল ইসলাম রয়েছেন দশম স্থানে। তালিকার ১১তম স্থানে আছেন আনোয়ার হোসেন। তার নিট সম্পদ রয়েছে ১৩০ কোটি টাকা।

এর পরের অবস্থানগুলোতে রয়েছেন ক্রমানুসারে নাসা গ্রুপের মালিক নজরুল ইসলাম, প্রাণ আরএফএল গ্রুপের আহসান খান চৌধুরী, চট্টগ্রামের এস আলম গ্রুপের কর্ণধার মো. সাইফুল আলম, মো. জহিরুল ইসলাম চৌধুরী, এনটিভির কর্ণধার মো. মোসাদ্দেক আলী, হাজি ইউনুস আহমেদ, গাজী গ্রুপের কর্ণধার গোলাম দস্তগীর গাজী এবং নিটল-নিলয় গ্রুপের প্রতিষ্ঠাতা আবদুল মাতলুব আহমাদ।