মেইন ম্যেনু

বান্ধবীর নগ্ন ছবি দেখায় স্কুলছাত্রকে…

চাচাতো ভাইয়ের বান্ধবীর নগ্ন ছবি ও ভিডিও দেখার ‘অপরাধে’ খুন হয়েছেন ফিরোজ আলী বাঁধন নামে এক স্কুলছাত্র। অপহরণ হওয়ার চারদিন পর রবিবার দুপুরে নগরীর পাহাড়তলী থানাধীন সাগরিকা এলাকার একটি ছড়া থেকে বাঁধনের লাশ উদ্ধার করে গোয়েন্দা পুলিশ।

এ ঘটনার সাথে জড়িত থাকার অভিযোগে নিহত বাঁধনের চাচাতো ভাই হৃদয় আলী মল্লিককে গ্রেফতার করেছে মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ। নিহত বাঁধন কাট্টলীর পিএইচ আমিন একাডেমির অষ্টম শ্রেণির শিক্ষার্থী ছিলেন।

গোয়েন্দা পুলিশের অতিরিক্ত উপ-কমিশনার (বন্দর-পশ্চিম) নাজমুল হাসান বলেন, ‘কয়েকদিন আগে নিহত বাঁধন চাচাতো ভাই হৃদয়ের মোবাইল নিয়ে খেলা করার সময় বান্ধবীর কিছু নগ্ন ছবি ও ভিডিও দেখে ফেলে।

এ ঘটনা ফাঁস হলে ‘সম্মানহানি’র ভয়ে বাঁধনকে হত্যার পরিকল্পনা করে হৃদয়। গত ৩ মে তাকে হত্যার পরিকল্পনা করে হৃদয়। ৪ মে স্কুল থেকে ফিরলে খেলার কথা বলে হৃদয় তার বাসায় নিয়ে যায় বাঁধনকে। পরে এনার্জি ড্রিঙ্কের মধ্যে ঘুমের ট্যাবলেট খাওয়ানো হয় তাকে। এতে বাঁধন ঘুমিয়ে পড়লে পরে তাকে হত্যা করে লাশ বস্তাবন্দি করে ছড়ায় ফেলে দেয়া হয়। এ ঘটনায় জড়িত থাকার সন্দেহে রবিবার সকালে হৃদয়কে নিজ বাসা থেকে গ্রেফতার করা হয়। পরে তার দেয়া স্বীকারোক্তিতে বস্তাবন্দি লাশটি উদ্ধার করা হয়।’

নাজমুল হাসান বলেন, ‘গ্রেফতার হওয়া হৃদয় জিজ্ঞাসাবাদে খুনের কথা স্বীকার করেছে। তার দেয়া স্বীকারোক্তি মতে কিছু আলামতও উদ্ধার করা হয়েছে।’