মেইন ম্যেনু

বাপ্পির কণ্ঠও রোমান্টিক!

এর আগে একটি রোমান্টিক ধাচের সিনেমায় বাপ্পি চৌধুরী নায়কের চরিত্রে অভিনয় করলেও ডাবিং করানোর সময় অন্য এক জনকে দিয়ে ডাবিং করানো হয়। তখন সিনেমাটি পরিচালক এর কারণ হিসেবে বলেছিলেন, রোমান্টিক সিনেমায় বাপ্পির ‘কণ্ঠ কোনোভাবেই মানানো সম্ভব নয়’। তবে বিষয়টিকে পাশ কাটিয়ে এবারে গুণি নির্মাতা জাকির হোসেন রাজু পরিচালিত রোমান্টিক ধাচের সিনেমা অনেক দামে কেনা-তে অভিনয় করার পাশপাশি নিজেই ডাবিং করছেন।

রোববার ২৬ জুলাই বাপ্পি সিনেমাটির ডাবিং করছেন।

তিনি জানিয়েছেন, এবারই প্রথম নয় এর আগেও তিনি প্রায় ২০টি রোমান্টিক সিনেমায় অভিনয় করেছেন। এবং সেই সব সিনেমাতেও বাপ্পি নিজেই ডাবিং করেছেন।

এ বিষয়ে বাপ্পি বলেন, ‘অনেক দামে কেনা সিনেমার ডাবিং শেষ করলাম। আমার অভিনীত সব সিনেমাই আমি ডাবিং করেছি। এ সব সিনেমার নির্মাতারাও আমার ডাবিংয়ের প্রশংসা করেছেন। ডাবিংয়ে আমার কোন সমস্যা নেই।

ছবিটির নির্মাতা জাকির হোসেন রাজু এ বিষয়ে বলেন, ‘এখন সিনেমাটির আর একটি গানের কাজ বাকি আছে। গানটির কাজ করলেই সিনেমার কাজ শেষ। এই সিনেমার মাধ্যমে দর্শক অনেকদিন পরে ডিপজলকে রুপালি পর্দায় দেখতে পাবেন। অনেক সাধের ময়না সিনেমাটি মুক্তির পর দর্শকদের কাছ থেকে ভালো সাড়া পেয়েছি। আশা করছি, এ সিনেমাটিতেও দর্শকদের কাছ থেকে সাড়া পাব।’

এ সিনেমার গল্পে দেখা যাবে- নিঃসঙ্গ জীবন যাপন করছেন অভিনেতা ডিপজল। তার কোনো সঙ্গী নেই। একাকিত্বের জ্বালায় রাতে মদ খেয়ে শহরে ঘুরে বেড়ায় আর দুস্থ মানুষকে সেবা করে। বাপ্পি তাকে বড় ভাইয়ের মতো শ্রদ্ধা করে। এক সময় বাপ্পীকে নিজের অতীত জীবনের দুঃখের কথা জানায় ডিপজল। তখন ওঠে আসে মাহির সঙ্গে ডিপজলের ভালোবাসার সর্ম্পকের কথা। এ দিকে বাপ্পিও মাহিকে পছন্দ করেন। এ নিয়ে সৃষ্টি হয় নানা জটিলতা। এভাবেই এগিয়ে যায় সিনেমার গল্প।

জাজ প্রযোজিত অনেক দামে কেনা সিনোমায় বাপ্পির বিপরীতে অভিনয় করেছেন চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহি। এছাড়া একটি গুরুত্বপূর্ন চরিত্রে অভিনয় করেছেন মনোয়ার হোসেন ডিপজল। এছাড়া আরো অভিনয় করছেন তানহা মৌমাছি, জিয়া ভিমরুলসহ আরো অনেকে।