মেইন ম্যেনু

বাবা হতে চলেছেন রেলমন্ত্রী মুজিবুল হক

বাবা হতে চলেছেন রেলমন্ত্রী মুজিবুল হক। আগামী দুই/তিন মাসের মধ্যে এ ব্যাপারে একটি সুখবরট পাওয়া যাবে বলে বিশ্বস্ত একটি সূত্রে জানা গেছে।

রেলমন্ত্রীর স্ত্রী হনুফা আক্তার রাজধানীর স্কয়ার হাসপাতালে নিয়মিত শারীরিক পরীক্ষা করছেন। তিনি এখন ছয় মাসের সন্তানসম্ভাবা।

২০১৪ সালের ৩১ অক্টোবর ৫ লাখ ১ টাকা দেনমোহরে কুমিল্লার চান্দিনা উপজেলার মীরাখোলা গ্রামের মেয়ে হনুফা আক্তার রিক্তার সঙ্গে গাঁটছড়া বাঁধেন মুজিবুল হক।

স্কয়ার হাসপাতালের একটি দায়িত্বশীল সূত্রও এতথ্য নিশ্চিত করেছেন।

অন্ত:সত্ত্বা হওয়ার পর থেকেই রেলমন্ত্রীর স্ত্রী হনুফা আক্তার স্কয়ার হাসপাতালের একজন গাইনি বিশেষজ্ঞের তত্ত্বাবধানে রয়েছেন। সবকিছু ঠিক ঠাক থাকলে আগামী দুই/তিন মাসের মধ্যে সুখবরটি আসতে পারে।

জানতে চাইলে শুক্রবার সকালে মুঠোফোনে রেলমন্ত্রী মুজিবুল হক বলেন, ‘এ বিষয়ে আমার কাছে কোনো খবর নেই।’ আপনাকে ধন্যবাদ বলে মোবাইল সংযোগ কেটে দেন রেলমন্ত্রী।

একটু বেশি বয়সে বিয়ে করলেও সব আনুষ্ঠানিকতা সম্পন্ন করেই কনেকে ঘরে তুলেন রেলমন্ত্রী। গায়ে হলুদ, কনের বাড়িতে ধুমধামের সঙ্গে বিয়ের আয়োজন, ঢাকা থেকে বরযাত্রী নিয়ে যাওয়া থেকে শুরু করে বৌভাত কোনটারই কমতি ছিল না বিয়েথে।

১৯৪৭ সালের ৩১ মে কুমিল্লার চৌদ্দগ্রাম উপজেলার শ্রীপুর ইউনিয়নের বসুয়ারা গ্রামে মো. মুজিবুল হক জন্মগ্রহণ করেন। ১৯৯৬, ২০০৮ ও ২০১৪ সালে তিনি চৌদ্দগ্রাম থেকে সাংসদ নির্বাচিত হন। ২০১২ সালের ১৩ সেপ্টেম্বর থেকে তিনি রেলপথমন্ত্রীর দায়িত্ব পালন করছেন।

অন্যদিকে ১৯৮৫ সালের ২০ মে হনুফা আক্তার ওরফে রিক্তা জন্মগ্রহণ করেন। ২০০১ সালে গল্লাই আবেদা নূর বালিকা উচ্চবিদ্যালয় থেকে রিক্তা এসএসসি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হন। এরপর তিনি স্নাতকোত্তর ডিগ্রি অর্জন করে এলএলবি পাস করেন।