মেইন ম্যেনু

বালতি ভর্তি টাকা ঢেলে বিতর্কিত বিজেপি নেতা

অতি সম্প্রতি ভারতের সামাজিক মাধ্যমে একটি ভিডিও আলোড়ন তুলেছে। এতে দেখা যায়, গুজরাট রাজ্যে মোদীর দল বিজিপি’র এক স্থানীয় নেতা এক গায়কের গান শুনে খুশী হয়ে তার ওপর বালতি ভর্তি টাকা ঢালছেন।

এই ঘটনা ঘটেছে গত মাসের ২০ তারিখে রাজ্যের ভাদোদারা এলাকায়। ভাদোদারার হারনিতে চলছিল ঐতিহ্যবাহী ‘গণপতি বিজর্সন’ সঙ্গীত পরিবেশনের উৎসব। সেখানে উপস্থিত ছিলেন ভাদোদারা জেলা বিজেপি সভাপতি সতীশ প্যাটেল। মঞ্চে গুজরাটের বিখ্যাত গায়ক কৃতীদান গাধিভীর সঙ্গীত পরিবেশনে সময় তিনি তারা মাথায় টাকার বালতি ঢালতে শুরু করেন।

এই ঘটনা নিয়ে সমালোচনা শুরু হওয়ার পর প্যাটেল বলেছেন, এগুলো তার নিজস্ব অর্থ নয়-গোরক্ষা প্রচারণা থেকে উত্তোলিত চাঁদা। তিনি আরো দাবি করেন, গোরক্ষা আন্দোলনের জন্য তারা ওই অনুষ্ঠান থেকে ৩০ থেকে ৪০ হাজার টাকা চাঁদা তুলেছিলেন যা পরে কৃতীদান গাধিভী’কে দান করা হয়।

ভারতে এটি কোনো নতুন ঘটনা নয়। এর আগেও বিভিন্ন সময়ে বিজেপি নেতাদের টাকা ছুড়তে দেখা গেছে। গত ২৭ সেপ্টেম্বর বিজেপি ‘র এক পার্লামেন্ট সদস্য রাজেশ চৌদাসামা চোরওয়াদ শহরে এক নাচের অনুষ্ঠানে টাকা ছুঁড়েছিলেন। পরে ঘটনা প্রকাশিত হওয়ার পর তিনি এটিকে ‘ঐতিহ্য’ বলে আত্মপক্ষ সমর্থন করেন।

একই ঘটনা ঘটেছিল গত এপ্রিল মাসে। গুজরাটের জামনগর আসন থেকে নির্বাচিত পার্লামেন্ট সদস্য পুনম মাধমকে স্থানীয় এক লোকনৃত্য অনুষ্ঠানে কাড়ি কাড়ি টাকা ছুড়তে দেখা যায়।

এই ভিডিওটি দেখার পর অনেকের মত আপনার মনেও প্রশ্ন ওঠবে বিজিবি নেতারা আসলে কত টাকার মালিক এবং এরা অত টাকা পায় কোথায়। অথচ এই সেই ভারত, যেখানে মহাজনের কর্জ চুকাতে না পেরে চলতি বছরই আত্মহত্যা করছে হাজার হাজার কৃষক। সরকারি হিসাব অনুযায়ী ভারতে প্রতি ৩০ মিনিটে একজন কৃষক আত্মহত্যা করেন। ভারতের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় নিয়ন্ত্রিত ন্যাশনাল ক্রাইম রেকর্ড ব্যুরো (এনসিআরবি) বলছে ভারতে গড়ে প্রতি বছর ১৭,৫০০ কৃষক আত্মহত্যা করে থাকেন।

ভিডিও দেখতে নিচে ক্লিক করুন