মেইন ম্যেনু

‘বাসযোগ্য’ তিন গ্রহের সন্ধান !

সৌরজগতের বাইরে পৃথিবীর মতো বাসযোগ্য সম্ভাব্য তিন গ্রহ আবিষ্কারের দাবি করেছেন একদল বিজ্ঞানী।

ন্যাচার জার্নালে প্রকাশিত এ-সম্পর্কিত প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, পৃথিবী থেকে ৩৯ আলোকবর্ষ দূরে একটি ছোট ও শীতল নক্ষত্রকে কেন্দ্র করে ঘুরছে গ্রহ তিনটি। এগুলোর আকার ও তাপমাত্রা কিছুটা পৃথিবীর মতো।

বেলজিয়ামের ইউনিভার্সিটি অব লিয়েজের জ্যোতিঃপদার্থবিজ্ঞানী ও প্রতিবেদনের প্রধান লেখক মাইকেল গিলন বলেছেন, ‘সৌরজগতের বাইরে জীবনের রাসায়নিক উপাদানের খোঁজ পাওয়ার প্রথম সুযোগ এটি। পৃথিবীর আকারের সঙ্গে এ তিন গ্রহের আকারের মিল থাকার যথেষ্ট সম্ভাবনা আছে। এগুলো বাসযোগ্যও হতে পারে। বিদ্যমান প্রযুক্তি ব্যবহার করে গ্রহ তিনটির তাপমাত্রা বিশ্লেষণ করা যাবে।’

তিনি আরো বলেন, ‘এ আবিষ্কার বাসযোগ্য গ্রহের সন্ধানকে আরো জোরালো করবে।’

গিলন ও তার সহকর্মীরা মিলে ‘ট্রাপ্পিস্ট’ নামে ৬০ সেন্টিমিটারের একটি টেলিস্কোপের মাধ্যমে বেশ কিছু ক্ষুদ্র নক্ষত্র শনাক্ত করেছেন। এগুলোর মধ্যে কিছু আছে খুব ছোট বা এতটাই তাপহীন যা টেলিস্কোপে ধরা পড়া দুরুহ।

তবে তারা এমন একটি ক্ষুদ্র নক্ষত্র শনাক্ত করেছেন, যেটির আকার সূর্যের আট ভাগের এক ভাগ এবং নিশ্চিতভাবে সেটি শীতল। নতুন আবিষ্কৃত এ নক্ষত্রের নাম দেওয়া হয়েছে ট্রাপ্পিস্ট-১। ট্রাপ্পিস্ট টেলিস্কোপের মাধ্যমে আবিষ্কৃত হওয়ায় গ্রহটির এমন নাম দেওয়া হয়েছে।

কয়েক মাস পর্যবেক্ষণে দেখা গেছে, এ নক্ষত্র থেকে আসা মহাজাগতিক রশ্মি নিয়মিত বিরতিতে নিষ্প্রভ হয়ে যাচ্ছে। এ বিষয়টি প্রমাণ দেয়, এর কক্ষে আরো কিছু বস্তু আছে। এ নিয়ে আবার গবেষণায় বসেন বিজ্ঞানীরা। তাদের বিশ্লেষণে ধরা পড়েছে, কয়েকটি গ্রহ ওই ক্ষুদ্র নক্ষত্রকে কেন্দ্র করে ঘুরছে- যেমন সূর্যকে কেন্দ্র করে ঘুরছে পৃথিবী ও অন্যান্য গ্রহ।