মেইন ম্যেনু

বিক্ষোভ গড়ালো দ্বিতীয় দিনে, নাজিব রাজাক ক্ষুব্ধ

হাজার হাজার বিক্ষোভকারীরা ভিড় করেছে মালয়েশিয়ার রাজধানী শহরসহ বেশ ক’টি গুরুত্বপূর্ণ শহরে। হলুদ টিশার্টে পীত বর্ণ ধারণ করেছে কালো রাজপথ। বিক্ষোভ গড়িয়েছে দ্বিতীয় দিনে। নাজিব রাজাকের ৭০ কোটি মার্কিন ডলার মূল্যের অর্থ আত্মসাৎ-সংক্রান্ত অভিযোগের কোনো সুরাহা না হওয়া পর্যন্ত, কিংবা তার স্বেচ্ছায় পদত্যাগ না করা অব্দি, এ বিক্ষোভ চলবে।

এ নিয়ে চরমভাবে ক্ষুব্ধ নাজিব রাজাক। প্রথম থেকেই তো তিনি আনীত অভিযোগ অস্বীকার করে আসছেন। বলছেন ওয়ান-এমডিবির কাছে ‘মধ্যপ্রাচ্য’ থেকে আসা বিপুল অঙ্কের ঋণ দেশীয় কাজে ব্যয় হবার জন্যেই এসেছিল, এবং সেটি তার ব্যক্তিগত ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে জমা হওয়াটাও দূষণীয় নয়, কেননা বিগত দশকে ২০০৯ সালে ওয়ান-এমডিবি তো তার হাতেই গড়া।

নাজিব রাজাক বলছেন, এই যারা হলুদ টিশার্ট পরে এসেছে, রাস্তায় শুয়ে আছে, প্রত্যেকে শোচনীয়ভাবে মানসম্মান ডোবাতে এসেছে দেশের। বাইরের পৃথিবীর সামনে মালয়েশিয়ার মুখে কালি লেপন করতে এসেছে ওরা অনর্থক। জাতীয় দৈনিক বার্নামার কাছে এ কথা বলেন তিনি।

পুলিশের ভাষ্য— ২৫,০০০ মানুষ অংশ নিয়েছে বিক্ষোভে। কিন্ত বিক্ষোভকারীদের ভাষ্য বিক্ষোবে অংশ নিচ্ছে অন্তত ২ লাখ মানুষ।

শনিবার বিক্ষোভের এক পর্যায়ে দিনের শেষভাগে চমক হিসেবে উপস্থিত হন আধুনিক মালয়েশিয়ার রূপকার মাহাথির মোহাম্মদ। বিক্ষোভকারীদের ‘চালিয়ে যান’ বলে উৎসাহ দেন এ সাবেক প্রধানমন্ত্রী।