মেইন ম্যেনু

বিশ্বকাপকেও পেছনে ফেলল পাকিস্তান সুপার লিগ

পাকিস্তানের ঘরের মাঠে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট নির্বাসিত। যাযাবরের মতো তাই তারা বিভিন্ন মাঠে খেলে বেড়াচ্ছে। সংযুক্ত আরব আমিরাতকে তারা সেকেন্ড হোম ভেন্যু বানিয়ে খেলে যাচ্ছে ২০০৯ সাল থেকে। অনেক আশঙ্কা আর চোখ রাঙানি উপেক্ষা করে আরব আমিরাতে মাঠে গড়ায় পাকিস্তান সুপার লিগের প্রথম আসর।

আর প্রথম আসরেই বাজিমাত করেছে এই লিগ। তাই দ্বিতীয়বার এই লিগ আয়োজনের নীতিগত সিদ্ধান্ত নিয়েছে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড। পাকিস্তান সুপার লিগের প্রথম আসরে ১১টি দেশের খেলোয়াড়রা অংশ নেয়। তার মধ্যে বড় তারকারাও ছিলেন। ক্রিস গেইল, কেভিন পিটারসন, বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার সাকিব আল হাসানদের মতো তারকারা বিভিন্ন দলের হয়ে অংশ নেন।

টিআরপি রেটের দিক দিয়ে পাকিস্তান সুপার লিগ পেছনে ফেলেছে অস্ট্রেলিয়া ও নিউজিল্যান্ডে আয়োজিত ২০১৫ ক্রিকেট বিশ্বকাপকেও। লিগ চলাকালিন চারটি দেশের টেলিভিশন চ্যানেলে সবচেয়ে বেশি দেখা হয়েছে পিএসএল। যার টিআরপি রেট ছিল ৫৫ শতাংশ। যা গেল বিশ্বকাপের চেয়ে বেশি। এ ছাড়া ৫টি ফ্রাঞ্চাইজি থেকে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড ৯৩ মিলিয়ন ডলার সংগ্রহ করে।

ব্যাপক সাফল্য পাওয়ার কারণে আগামী বছর পাকিস্তান সুপার লিগ পাকিস্তানের মাটিতে আয়োজনের কথা জানিয়েছেন পিএসএলের চেয়ারম্যান নাজাম শেঠি। শেষ পর্যন্ত সেটা সম্ভব হবে কিনা সেটাই এখন দেখার বিষয়।