মেইন ম্যেনু

বিশ্বমানের অপেরা হাউস হচ্ছে হাতিরঝিলে

রাজধানীর হাতিরঝিলে আন্তর্জাতিক মানের একটি অপরো হাউস নির্মাণের ঘোষণা দিয়েছেন গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রী ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন। দৃষ্টিনন্দন এ ঝিলের মাঝমাঝি একটি কৃত্রিম দ্বীপ তৈরি করে সেখানে ঢাকার চোখ নির্মাণেরও ঘোষণা দেন তিনি।

শুক্রবার সকালে হাতিরঝিল ও গুলশান-বনানী লেকের উন্নয়ন কাজ পরিদর্শনের সময় এ কথা জানান তিনি।

গণপূর্ত মন্ত্রী বলেন, ভাসমান এমপি থিয়েটারের নির্মাণ কাজ অতিদ্রুতই শেষ করা হবে। এখানে বিভিন্ন সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান করা যাবে। এমপি থিয়েটারের কাছেই ১০ তলা বিশিষ্ট অত্যাধুনিক গাড়ি পার্কিং ভবন নির্মাণ করা হচ্ছে। এ ভবনে গাড়ি পাকিং-এর সুবিধা ছাড়াও একটি সম্মেলন কক্ষ, হাতিরঝিলের ইতিহাস সংক্রান্ত যাদুঘর, রেস্টুরেন্ট ও অন্যান্য সুবিধা থাকবে। হাতিরঝিলে ভাসমান রেস্টুরেন্টও করা হবে এবং ব্যাটারি চালিত ওয়াটার স্ক্রুটার চালু করা হবে।

পরে মন্ত্রী গুলশান-বনানী লেকের উন্নয়ন কাজ পরিদর্শন করেন। তিনি গুলশান লেকের মাটি অপসারণের কাজ দ্রুত শেষ করার নির্দেশ দেন। পানিতে যাতে ময়লা না ফেলতে হয় সে জন্য লেকের পাড়ে সিটি করপোরেশনকে ডাস্টবিন নির্দেশ দেন তিনি।

এছাড়াও মন্ত্রী বনানীতে লেকের বিভিন্ন স্থানের মাটি অপসারণের কাজ পরিদর্শন করেন। গুলশান-বনানী লেকের মাটি অপসারণের কাজ শেষ হলে লেকের পানিতে আশপাশের বাসাবাড়ির বর্জ্য সংযোগ বন্ধ করে দেয়ার নির্দেশ দেন, যাতে কোনভাবে বর্জ্য দিয়ে লেকের পানি দুষিত না হয়।

উল্লেখ্য ৪১০ কোটি টাকা ব্যয়ে গুলশান-বনানীর লেকের উন্নয়ন করা করা হচ্ছে।

হাতিরঝিলের উন্নয়ন কাজ পরিদর্শণ সময় সংস্কৃতি মন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর, প্রধানমন্ত্রীর মূখ্য সচিব মো. আবুল কালাম আজাদ, গৃহায়ন ও গণপূর্ত সচিব শহীদউল্লা খন্দকার, রাজউক চেয়ারম্যান জি এম জয়নাল আবেদীন, মেজর জেনারেল সাইদসহ ঊর্ধতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।