মেইন ম্যেনু

বিশ্বের ক্ষুদ্রতম মানুষটি আর নেই

৭৫ বছর বয়সে চলে গেলেন বিশ্বের ক্ষুদ্রতম মানুষ নেপালের চন্দ্র বাহাদুর দাঙ্গি। শুক্রবার সকালে প্রশান্ত মহাসাগরে যুক্তরাষ্ট্রের শাসনাধীন আমেরিকান সামোয়া দ্বীপপুঞ্জের রাজধানী পাগো পাগোর একটি হাসপাতালে মৃত্যুবরণ করেন।

চন্দ্র বাহাদুর দাঙ্গির উচ্চতা ছিল মাত্র ২১ দশমিক পাঁচ ইঞ্চি। ২০১২ সালে ক্ষুদ্রতম মানুষ হিসেবে গিনেজ বুকে তার নাম রেকর্ড করা হয়।

দাঙ্গির পারিবারিক বন্ধু ভারতের পুনের র্যা ম্বো সার্কাসের মালিক সুজিত দিলিপ বলেন, ‘বিশ্বের ক্ষুদ্রতম মানুষটি, যাকে আমরা ভালোবেসে প্রিন্স চন্দ্র বলে ডাকতাম তার চিরবিদায়ে আমাদের সার্কাস শোক সাগরে ভাসছে।’

পাগো পাগোর যে হাসপাতালটিতে চন্দ্র বাহাদুর চিকিৎসাধীন ছিলেন সেই লিন্ডন বি জনসন ট্রপিকাল মেডিক্যাল সেন্টারের এক মুখপাত্র জানিয়েছেন, ঠিক কোন রোগে দাঙ্গির মৃত্যু হয়েছে তা জানা যায়নি। তবে তিনি নিউমোনিয়ায় ভুগছিলেন বলে কাঠমান্ডু পোস্ট এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে। তাকে নেপালে চিকিৎসা দেয়া হয়েছিল। তবে অবস্থার অবনতি হলে উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে সাড়ে সাত হাজার মাইল দূরে আমেরিকান সামোয়াতে নিয়ে যাওয়া হয়।

রাজধানী কাঠমান্ডু থেকে প্রায় তিন শ ৩৫ মাইল দক্ষিন-পশ্চিমের রিমখোলি গ্রামে বাস করতেন দাঙ্গি। ক্ষুদ্রতম মানুষ হিসেবে গিনেজ বুকে নাম ওঠার আগে দরিদ্র দাঙ্গি টেবিলে বিছানোর কাপড় ও মাথার ফিতা তৈরি করতেন।

চন্দ্র বাহাদুরের আগে বিশ্বের সবচেয়ে খর্বাকৃতির মানুষের স্বীকৃতি পেয়েছিলেন ফিলিপাইনের নাগরিক জানরে বালাউয়িং। তাঁর উচ্চতা ছিল ২৩ দশমিক ৫৯ ইঞ্চি।