মেইন ম্যেনু

‘বেকার সমস্যা মহামারির মতো ছড়িয়ে পড়েছে’

কর্মসংস্থানের অভাবে দেশে বেকার সমস্যা মহামারির মতো ছড়িয়ে পড়েছে বলে মন্তব্য করেছেন জাতীয় পার্টির কো-চেয়ারম্যান জি এম কাদের।

শনিবার বেলা ১১টায় রাজধানী রমনার ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন মিলনায়তনে দলের অষ্টম কাউন্সিলে তিনি এ মন্তব্য করেন।

কাদের বলেন, দেশে এখন স্বার্থের রাজনীতি চলছে। এ কারণে দেশে স্বস্তিদায়ক ও সুষ্ঠু রাজনৈতিক পরিবেশ নেই। রাজনৈতিক অস্থিরতার জন্য নেই আশানুরূপ বিনিয়োগ। ফলে নতুন নতুন কর্মসংস্থান হচ্ছে না। এ কারণে বেকার সমস্যা এখন মহামারির মতো ছড়িয়ে পড়েছে।

তিনি বলেন, জনগণের জন্য কল্যাণমূলক রাজনীতি করতে রাজনৈতিক দলগুলো ব্যর্থ হয়েছে। তাই দেশের মানুষ জাতীয় পার্টির দিকে তাকিয়ে আছে। স্বার্থের রাজনীতি পরিহার করে জনকল্যাণে রাজনীতি করতে পারলে জাতীয় পার্টি জনগণের দলে পরিণত হবে।

আগামী দিনে দলের নেতৃত্বের প্রতি পূর্ণ আনুগত্য প্রকাশ করে ঐক্যবদ্ধভাবে নেতা-কর্মীদের জাতীয় পার্টিকে এগিয়ে নেওয়ার আহ্বান জানান জি এম কাদের।

তিনি বলেন, জাতীয় পার্টির রাজনীতি হতে পারে সরকার ও প্রশাসনের জনকল্যাণমূলক কাজে সহযোগিতা করা। অন্যদিকে সরকারের সব জনস্বার্থবিরোধী কর্মকাণ্ডের বিরুদ্ধে জনগণের পক্ষে বলিষ্ঠ ভূমিকা রাখা।

দলের মহানগর দক্ষিণের সভাপতি সৈয়দ আবু হোসেন বাবলা এমপি ও মহানগর উত্তরের সভাপতি এস এম ফয়সল চিশতী অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করছেন।

সাবেক রাষ্ট্রপতি এইচ এম এরশাদের সভাপতিত্বে সম্মেলনের মঞ্চে রয়েছেন পার্টির সিনিয়র কো-চেয়ারম্যান রওশন এরশাদ, মহাসচিব এ বি এম রুহুল আমিন হাওলাদার, জ্যেষ্ঠ নেতা পানিসম্পদমন্ত্রী ব্যারিস্টার আনিসুল ইসলাম মাহমুদ, সাবেক মহাসচিব জিয়াউদ্দিন আহমেদ বাবলু, অ্যাডভোকেট কাজী ফিরোজ রশীদ, প্রতিমন্ত্রী মসিউর রহমান রাঙ্গা, অধ্যাপক দেলোয়ার হোসেন খান, প্রতিমন্ত্রী মুজিবুল হক চুন্নু, প্রেসিডিয়াম সদস্য আলহাজ মাহমুদুল ইসলাম চৌধুরী, বিরোধী দলের চিফ হুইপ তাজুল ইসলাম, দক্ষিণের সভাপতি সৈয়দ আবু হোসেন বাবলা, প্রেসিডিয়াম সদস্য ফখরুল ইমাম, এম এ সাত্তার, অ্যাডভোকেট সালমা ইসলাম, এম এ কাসেম, অধ্যাপক মাসুদা রশীদ চৌধুরী, মীর আবদুস সবুর আসুদ, দক্ষিণের সেক্রেটারি জহিরুল আলম রুবেল, মহিলা পার্টির সেক্রেটারি অনন্যা হোসেন মৌসুমীসহ দলের কেন্দ্রীয় নেতা ও সহযোগী সংগঠনের শীর্ষ পর্যায়ের নেতারা।

এ ছাড়া সম্মেলনে প্রায় ১৫টি দেশের রাষ্ট্রদূতরা অতিথি হিসেবে রয়েছেন।

সকাল সাড়ে ১০টায় জাতীয় পতাকা, দলীয় পতাকা ও শান্তির প্রতীক পায়রা উড়িয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে কাউন্সিলের উদ্বোধন ঘোষণা করেন দলের চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ।