মেইন ম্যেনু

বেশি মোটা হওয়ায় স্ত্রীকে তালাক!

বৌ বেশি মোটা। এ নিয়ে আফসোসের অন্ত ছিল না এক সৌদি স্বামীর। তাই স্বামীর মন জয় করতে মোটা অঙ্কের অর্থ ব্য করে নিজের দেহে অস্ত্রোপচার করিয়েছিলেন ওই স্থূল স্ত্রী। কিন্তু টাকার শোক ভুলতে পারছিলেন না স্বামী। তাই শেষে স্ত্রীকে তালাক দেন।

ওই দম্পতি বাস করত সৌদি আরবের রাজধানী রিয়াদে। বৌটি একটি স্কুলে শিক্ষকত করতেন। কিন্তু তিনি বেশি মোটা হওয়ায় তার স্বামী তাকে পছন্দ করতেন না। তার পছন্দ ছিল ছিমছাম গড়নের আকর্ষণীয় ফিগারের নারী। এ নিয়ে তিনি তার স্ত্রীকে কথা শোনাতেও ছাড়তেন না। সম্প্রতি ওই নারীর স্বামী ব্যবসার কাজে কয়েকদিনের জন্য অন্য শহরে গিয়েছিলেন। এই ফাঁকে স্ত্রী এক চিকিৎসকের সঙ্গে পরামর্শ করে মেদ কমানোর জন্য নিজ দেহে অস্ত্রোপচার করান। এতে তার ব্যয় হয়েছিল ৮০ হাজার সৌদি রিয়াল (বাংলাদেশি মুদ্রায় ১৬ লাখ ৭৭ হাজার ৪৯ টাকা)। বাড়ি ফিরে স্ত্রীর নতুন রূপ দেখে স্বামী তো মহা খুশি। কিন্তু যখন জানতে পারেন এই বাবদ তার লাখ লাখ টাকা খরচ হয়েছে, তখনই তার মন বিষাদে ছেয়ে যায়। কেননা তিনি ওই অর্থ দিয়ে নতুন বাড়ি কেনার পরিকল্পনা করেছিলেন।

হতাশ স্বামী তখন স্ত্রীর সঙ্গে কথা বলা তো দূরের কথা, তার দিকে তাকান পর্যন্ত বন্ধ করে দেন। ঠাঁই নেন অন্য ঘরে। কয়েকদিন ধরে চিন্তা ভাবনা করার পর শেষেমেষ স্ত্রীকে তালাক দেয়ার সিদ্ধান্ত নেন।

এই ঘটনা ফেসবুকে আসার পর ওই স্বামীর সমালোচনায় মুখর হয়ে ওঠেছে অনেকেই। তাদের যুক্তি, স্বামীকে খুশি করার জন্যই তিনি এই কাজ করেছিলেন। কোনো ফেসবুক ইউজার আরো বলেছেন, ওই স্বামী ইচ্ছে করলে এমন টাকা আরো উপার্জন করতে পারবেন। কিন্তু এমন নিবেদিত প্রাণ স্ত্রী তিনি কোথাও পাবেন না। কিন্তু লোকের কথায় কান দেয়ার মানুষ তিনি নন। তাই শেষে স্ত্রীকে তালাক দিয়েছেন ওই স্বামী।