মেইন ম্যেনু

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় দেবর-ভাবিকে কুপিয়ে আহত

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় জমি-জমা সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে নীলকান্ত দাস (৩৫) ও ভগবতী দাস (৩৫) নামে দুই দেবর-ভাবিকে কুপিয়ে গুরুতর আহত করেছেন তাদের প্রতিপক্ষের লোকজন। শুক্রবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া পৌরশহরের পূর্বপাইকপাড়া এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

আহত নীলকান্ত পূর্বপাইকপাড়া এলাকার মৃত গোপাল দাসের ছেলে ও ভগবতী জয়ন্ত দাসের স্ত্রী। তারা দুজনে সম্পর্কে দেবব-ভাবি। আহতদের মধ্যে আশঙ্কাজনক অবস্থায় নীলকান্তকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে এবং ভগবতীকে জেলা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

আহত ভগবতী জানান, গত দেড় বছর থেকে পূর্বপাইকপাড়ার বান্নীঘাট এলাকায় তিতাস নদী সংলগ্ন একটি জমি নিয়ে একই এলাকার গৌর সাহার সঙ্গে বিরোধ চলছিল। এ নিয়ে আদালতে একটি মামলাও চলছে। এরই জের ধরে শুক্রবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে গৌর সাহা তার ১৫/২০ জন সমর্থক নিয়ে অতর্কিতভাবে তাদের বাড়িতে হামলা চালায়। এ সময় নীলকান্তকে কুপিয়ে আহত করলে ভগবতী এগিয়ে আসলে তাকেও কুপিয়ে আহত করা হয়। পরে স্থানীয়রা ঘটনাস্থলে এসে আহতদের উদ্ধার করে জেলা সদর হাসপাতালে নিয়ে আসেন।

জেলা সদর হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা. একেএম হাবিবুল্লাহ জানান, ধারালো অস্ত্রের আঘাতের কারণে নীলকান্তের হাতের রগ কেটে যাওয়ায় তাকে ঢাকায় পাঠানো হয়েছে। তবে ভগবীতর অবস্থা তেমন গুরুতর না হওয়ায় তাকে সদর হাসপাতালেই ভর্তি রাখা হয়েছে।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর মডেল থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. মঈনুর রহমান জানান, ঘটনাটি তিনি শুনেছেন। এ ব্যাপারে প্রয়োজনীয় আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।